আর্জেন্টিনাকে দ্বিতীয় রাউন্ডে যেতে হলে যা যা করতে হবে।    ২০১৯-এ তিনশোর বেশি আসন পাবে বিজেপি!    নির্বংশ তৃণমূলে ২০১৯ এর পর বাতি দেওয়ার লোক থাকবে না : রাহুল সিনহা।    উস্কানিমূলক মন্তব্য ! সায়ন্তন বসুর বিরুদ্ধে মামলা রুজু করলো পুলিশ।    রাজ্য সরকারের নয়, কেন্দ্রের নিরাপত্তা রক্ষী নিতেই ইচ্ছুক মুকুল রায়।    আগেরবারের মত এবারেও শেষ মুহূর্তে বাতিল মুখ‍্যমন্ত্রীর চিন সফর, তবে কারণটা অদ্ভুত।     কোচবিহারে এলে দিলীপ ঘোষকে সাগরদিঘীর জলে দাঁড় করিয়ে রাখার হুঁশিয়ারি মন্ত্রী রবীন্দ্রনাথ ঘোষের।    তৃণমূল কংগ্রেস যে-ভাষা বোঝে আমরাও সেই ভাষায় বোঝাব : আবদুল মান্নান।    বধূ নির্যাতনের শিকার খোদ আলিপুরের মহিলা আইনজীবী ! গ্রেফতার স্বামী।    ২০১৯ সালে তৃণমূল দল আর বাংলায় থাকবে না : মুকুল রায়।    ঘি এর নামে কি খাচ্ছেন আপনারা ? জানতে দেখুন।     আপনার এ সপ্তাহ কেমন যাবে জেনে নিন আমাদের সাপ্তাহিক রাশিফল থেকে।
BREAKING NEWS:
  • আজকের বিশ্বকাপ ফুটবলের ফলাফল
  • ৬টার খেলায় ব্রাজিল- ২কোস্টারিকা_0
  • ৯টায় নাইজেরিয়া-২ আইসল্যান্ড-০
  • রাত ১২ টায় সার্বিয়া-১সুইজারল্যান্ড-২
{"effect":"slide-h","fontstyle":"normal","autoplay":"true","timer":4000}


৭টি মসজিদ বন্ধ করে ৬০ ইমামকে বিতাড়িত করার নির্দেশ

আমাদের ভারত ডেস্ক,১৩ জুন: তুর্কিকে সাবধান করতে নিজের দেশে সাতটি মসজিদ বন্ধের নির্দেশ দিল অষ্ট্রিয়া। একই সঙ্গে ওই মসজিদে ইমামদেরও বিতাড়িত করার নির্দেশও দেওয়া হয়েছে। কিন্তু মসজিদ বন্ধ সহ ইমামদের বিতাড়িত করার এই ঘটনায় বিশ্ব জুড়ে ধর্ম যুদ্ধ বেঁধে যাওয়ার আশঙ্কা প্রকাশ করছেন তুর্কীর রাষ্ট্রপতি।
অস্ট্রিয়ার প্রধানমন্ত্রী সেবেস্টিয়ান কার্জ জানিয়েছেন, ৭টি মসজিদ বন্ধ করে দিয়ে ৬০ জন ইমামকে দেশ থেকে বিতাড়িত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে অষ্ট্রিয়া। কারণ তাঁরা জানতে পেরেছেন তুর্কী জাতীয়তাবাদী দলের সঙ্গে এই মসজিদগুলির যোগাযোগ আছে। তাই এই ধরনের ইসলামীরাজনীতির বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নিতেই মসজিদ বন্ধ করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানান হয়েছে অষ্ট্রিয়ার তরফে। অস্ট্রিয়ার এই সিদ্ধান্তকে তুর্কীর রাষ্ট্রপতি ভবন “ইসলামফোবিক, বর্ণবিদ্বেষী ও পক্ষপাতদুষ্ট” সিদ্ধান্ত বলে অভিযোগ করেছে। তুর্কীর রাষ্ট্রপতি এরদোগান ইস্তামবুল বলেন, “অস্ট্রিয়ার সরকার যে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তাতে আমার আশঙ্কা, বিশ্ব একটি যুদ্ধের দিকে এগিয়ে যাবে। যাতে জড়িয়ে পড়বে ‘ ক্রুস ও ক্রিসেন্ট’র অনুসারীরা”। তিনি অষ্ট্রিয়াকে পাল্টা হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন, অস্ট্রিয়া এমন পদক্ষেপ নিলে আমরাও তার উপযুক্ত জবাব দিতে প্রস্তুত।
অস্ট্রিয়ার সরকার জানিয়েছে সেখানকার ২৬০ জন ইমামের মধ্যে ৬০জনকে বিতাড়িত করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। যার মধ্যে ৪০জন এর এটিআইবির সঙ্গে যোগাযোগ আছে। এই অস্ট্রিয়ান ইসলামিক সংস্থাটির সঙ্গে তুর্কী সরকারের যোগাযোগ আছে বলে জানা গেছে। অস্ট্রিয়ার প্রধানমন্ত্রী সেবেস্টিয়ান কার্জ বলেন, “প্যারালাল সম্প্রদায়, ইসলাম রাজনীতি ও মৌলবাদী মতাদর্শের কোনো স্থান নেই আমাদের দেশে।”

loading...

Leave a Reply

Be the First to Comment!

avatar
  Subscribe  
Notify of