যেকোন রকম বিজ্ঞাপনের জন্য আমাদের সঙ্গে যোগাযোগের মাধ্যম : amaderbharatdesk@gmail.com    চলে গেলেন দক্ষিণ ভারতে বিজেপির পদ্ম ফোটানোর অন্যতম কারিগর ও সৈনিক অনন্ত।    হিন্দু শরণার্থীদের নাগরিকত্ব, অবৈধ অনুপ্রবেশকারি বিতাড়নের দাবিতে রাজ্য জুড়ে আন্দোলনের পথে হিন্দু সংহতি।    মদ ও মাংস বিক্রিতে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হল অযোধ্যা জেলায়।    রথযাত্রার অনুমতি নিয়ে পুলিশের বিরুদ্ধে গড়িমসির অভিযোগ, আদালতে যাওয়া হুমকি দিলীপ ঘোষের।    মোদী উদ্বোধন করলেন দেশের প্রথম আন্তঃ রাজ্য জলপথ পন্য পরিবহন পরিষেবা, জলপথে যুক্ত হল উত্তর প্রদেশ -পশ্চিমবঙ্গ।    দাড়িভিট কাণ্ডে জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের রিপোর্ট চায় হাইকোর্ট।    এসআরএফটিআই ক্যাম্পাসে ভিন রাজ্যের ছাত্রীর শ্লীলতাহানির অভিযোগ।    বন্দিদশা থেকে মুক্তি, দেশে ফিরলেন মালয়েশিয়ায় নিপীড়িত কলকাতার সঞ্জয় মল্লিক।    রোগী মৃত্যুকে ঘিরে গাফিলতির অভিযোগে ফের রণক্ষেত্র পিয়ারলেস, ভাঙচুর।    সহবাস করার পরে ভুয়ো ফেসবুক অ্যাকাউন্ট খুলে সেই ছবি পোষ্ট করায় গ্রেফতার যুবক।    রাজ্য সরকারি কর্মীদের জন্য এবার ছট পুজোয় দু’দিন ছুটি ঘোষণা রাজ্য সরকারের।    আইএসএলের ধাঁচে সুন্দরবন মাতল ফুটবল উৎসবে।    আজ আপনার কেমন যাবে জেনে নিন।    গ্যাসের আলো থেকে এলইডি, জগদ্ধাত্রীর শহরে আলোর বিবর্তন।
BREAKING NEWS:
  • পুরীগামী ধৌলি এক্সপ্রেস লাইনচুত্য।
  • পাঁশকুড়ার কাছে লাইনচুত্য হয় ধৌলি।
  • দূর্ঘটনায় কোন হতাহতের খবর নেই।
{"effect":"slide-h","fontstyle":"normal","autoplay":"true","timer":4000}


রাজ্যে ধর্মান্তরকরণ নিয়ে উদ্বিগ্ন ধর্ম জাগরণ সমন্বয়

আমাদের ভারত, বর্ধমান, ১ এপ্রিল: রাজ্যে ধর্মান্তরকরণ নিয়ে উদ্বিগ্ন আরএসএসের শাখা সংগঠন ধর্মজাগরণ সমন্বয়। পূর্ব বর্ধমানের বাগনাপাড়ায় তাদের দু’দিনের বিশেষ শিবিরে হিন্দু ধর্ম থেকে অন্য ধর্মে চলে যাওয়া নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন বিভিন্ন বক্তা।
শনিবার বাগনাপাড়ার গাঙ্গুলি ভবনে ধর্ম জাগরণ সমন্বয়ের দু’দিনের শিবির শুরু হয়। এই শিবিরে বাছাই করা ৩৫ জন সদস্য যোগ দিয়েছিলেন। শিবিরে বিভিন্ন বক্তা বলেন, এই রাজ্যে অনেকেই নানা প্রলোভনে ধর্মান্তরিত হচ্ছে। এর ফলে হিন্দুধর্ম একটা চ্যালেঞ্জের মুখে পড়েছে। অন্য ধর্মে চলে যাওয়া আটকাতে কী কী করণীয় তা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে বলে বিশেষ সূত্রে জানা গিয়েছে। অন্য ধর্মে যাওয়া আটকাতে প্রচারের ওপর জোর দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি যারা অন্য ধর্ম গ্রহন করেছেন তাদের বুঝিয়ে কী ভাবে হিন্দু ধর্মে ফিরিয়ে আনা যায় তার রূপরেখাও তৈরি করা হয়েছে। এজন্য পরাবর্তন( ঘরওয়াপসি)-এর ওপর জোর দেওয়া হয়েছে।
দু’ দিনের এই শিবির রবিবার শেষ হয়। এই শিবিরে বেশ কিছু মঠমন্দিরের সাধুসন্ত বক্তব্য রাখেন। শিবিরে উপস্থিত ছিলেন, আরএসএসের শাখা সংগঠন প্রজ্ঞাভারতীর ক্ষেত্রীয় সংগঠন সম্পাদক অরবিন্দ দাস, ধর্ম জাগরণ সমন্বয়ের প্রান্তপ্রমূখ বিশ্বনাথ সাহা, ভান্ডারডিহি তপোবন আশ্রমের সন্ন্যাসী স্বামী সোমনাথ ব্রহ্মচারী, অগ্রদ্বীপের কপিলমুনি আশ্রমের সন্ন্যাসী হিরন্ময় ব্রহ্মচারী এবং বিশিষ্ট সমাজসেবী ননীগোপাল সিংহ।

Leave a Reply

avatar
  Subscribe  
Notify of