যেকোন খবরের জন্য আমাদের সঙ্গে যোগাযোগের মাধ্যম : amaderbharatnews@gmail.com    ফ্রিতে ৫০ লাখ স্মার্টফোন আর জিও সিম।    ফেসবুকে মুখ্যমন্ত্রীর অশালীন ছবি প্রচার,  গ্রেফতার শালবনীর যুবক।    “তৃণমূল বিরোধী শূন্য পঞ্চায়েত গড়তে চাইছে বলেই এত গণ্ডগোল”, বললেন দিলীপ ঘোষ।    আমডাঙা কাণ্ডে রাজস্থান থেকে গ্রেফতার সিপিএম নেতা জাকির।    এবার ভেঙে খসে পড়তে শুরু করল জ্বলন্ত বাগরি মার্কেট।    বীরভূমে আদিবাসী ছাত্রীর ধর্ষণের ঘটনায় ধর্ষকের দ্রুত বিচার চাইলেন লকেট।    তিন সপ্তাহের মধ্যে এসএসসির সম্পূর্ণ মেধাতালিকা প্রকাশের নির্দেশ হাইকোর্টের।    সারদা মামলায় বিধাননগরের প্রাক্তন গোয়েন্দা কর্তা অর্ণব ঘোষকে তলব সিবিআইয়ের।    বাগরি মার্কেটের সিঁড়ি, বাথরুমও ব্যবসায় লিজ, জার্মানি থেকেও ক্ষোভ মুখ্যমন্ত্রীর।    বালুরঘাটে কাজের দিনেও সরকারি অফিসে মদ-মাংসের আসর, আতঙ্কিত দপ্তরের এক মহিলা কর্মী।    হিলিতে ভোগের খিচুড়ির ভাগাভাগি নিয়ে সিভিক ভলান্টিয়ারকে বেধড়ক মার এনভিএফের।    কুলতলিতে রোগী মৃত্যুকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা, প্রহৃত চিকিৎসক।    আজ আপনার কেমন যাবে জেনে নিন।    দেড়বছর পর জামিন পেলেন উদ্বাস্তু আন্দোলনের নেতা সুবোধ বিশ্বাস।    ডিভোর্স না দেওয়ায় স্ত্রীকে খুনের চেষ্টা চিকিৎসক স্বামীর, গ্রেফতার অভিযুক্ত।    গোর্খাল্যান্ডের দাবিতে পাহাড়ে ফের পোস্টার, সিঁদুরে মেঘ দেখছে পাহাড়বাসী।    দিলীপ ঘোষের উপর হামলার প্রতিবাদে রাজ্যজুড়ে পথ অবরোধ কর্মসূচি বিজেপির।    হোয়াটসঅ্যাপে খুব গুরুত্বপূর্ণ তিনটি পরিবর্তন হতে চলেছে।    এবার ভাঁজ করে রাখতে পারবেন আপনার স্মার্টফোন।
BREAKING NEWS:
  • নিম্নচাপের জেরে দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টি
  • বৃষ্টি চলবে শুক্রবার পর্যন্ত বলে
  • আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে জানানো হয়েছে।
{"effect":"slide-h","fontstyle":"normal","autoplay":"true","timer":4000}


ভোটের লড়াইয়ে পাশে পেতে সংখ্যালঘুদের অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী

আমাদের ভারত ডেস্ক, ১৪ সেপ্টেম্বর; এর আগে প্রধানমন্ত্রীকে তেমনভাবে দেখা যায়নি সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে। কিন্তু এবার মুসলিম সম্প্রদায়ের বিশেষ অনুষ্ঠানে তিনি গেলেন মসজিদে। সামনেই মধ‍্যপ্রদেশে বিধানসভা নির্বাচন। তারপরেই লোকসভা নির্বাচন। রাজনৈতিক মহলের ধারণা ভোট ব্যাংকের খাতিরেই মোদী একেবারে জুম্মাবারে গিয়ে হাজির হলেন ইন্দোরের এক মসজিদে।

আগামী ২১ সেপ্টেম্বর মহরম। তার আগে নানা ধরনের অনুষ্ঠানের আয়োজন করা বিভিন্ন জায়গায়। তেমনি বোহরা সম্প্রদায়ের একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিলেন প্রধানমন্ত্রী।

ইসলামী বছরের শুরুর প্রথম দশদিনকে আসারা মুবারক বলা হয়। এই দশদিনের অনুষ্ঠান উৎসর্গ‌ করা হয় মহম্মদ ও তার পরিবারকে। এই সময় ইমাম হোসেন ও তার পরিবারের হত‍্যা করা হয়েছিল। কারাবালার যুদ্ধে মারা যান মহম্মদের দুই নাতি।
সেই ঘটনা স্মরণ করেই মহররম পালন করে মুসলিম সম্প্রদায়।

ইন্দোরে মসজিদে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন বোহরা সম্প্রদায়ের সঙ্গে তার দীর্ঘদিনের গাঁটছড়া। তিনি নিজেকে তাদের একজন বলেই মনে করেন। প্রধানমন্ত্রী বোহরা সম্প্রদায়ের মানুষদের বলেন তাদের জন‍্য প্রধানমন্ত্রীর দরজা সবসময় খোলা।

কিন্তু এই ঘটনা নিয়ে গুঞ্জন শুরু হয়েছে রাজনৈতিক মহলে। এতদিন পর্যন্ত কখনো প্রধানমন্ত্রীকে সংখ্যালঘুদের অনুষ্ঠানে তেমন দেখা যায় নি। কখনো কোনো ইফতার মাহফিলেও সামিল হননি তিনি। এমনকি রাষ্ট্রপতি ভবনের ইফতার পার্টিও এড়িয়ে চলেছেন মোদী।

এর আগে সংখ‍্যা লঘুদের অনুষ্ঠানে গিয়ে ধর্মীয় টুপি না পড়তে চাওয়ায় বিতর্ক হয়েছিল ওই ঘটনা নিয়ে। এতকিছুর পর তিনি নিজেই আবার এলেন মুসলিমদের বোহরা গোষ্ঠীর অনুষ্ঠানে যোগ দিতে। স্বভাবতই প্রশ্ন উঠেছে রাজনৈতিক মহলে। অনেকেই এই প্রশ্নের উত্তর খুঁজতে গিয়ে মনে করছেন সামনে ‌ক্ষমতা দখলের লড়াই। তাই সেই লড়াইয়ে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়কে পাশে পেতেই প্রধানমন্ত্রী এই পদক্ষেপ নিয়েছেন।

Leave a Reply

avatar
  Subscribe  
Notify of