বনগাঁয় হিন্দু সংহতির মাতৃভাষা দিবসের অনুষ্ঠান বন্ধ করে দিল পুলিশ, বাইক সহ গ্রেফতার ২৪

আমাদের ভারত, উত্তর ২৪ পরগণা, ২০ সেপ্টেম্বর: হিন্দু সংহতির মাতৃভাষা দিবস বন্ধ করে দিল পুলিশ। রবিবার উত্তর ২৪ পরগনার বনগাঁ থানার পুলিশ আংরাইল জোড়া ব্রিজের কাছে আটকে দেয় হিন্দু সংহতির বাইক র‍্যালি। বনগাঁ শহরে মাতৃভাষা দিবস পালন করতে বাধা দেয় বলে অভিযোগ। বাইক সহ ২৪ জন হিন্দু সংহতির সদস্যদের গ্রেফতার করে পুলিশ। এই ঘটনাকে ঘিরে এলাকায় ব্যপক উত্তেজনা ছড়ায়। থানার সামনে বিক্ষোভ করেন হিন্দু সংহতি। অভিযোগ, তৃণমূল নেতাদের কথায় পুলিশ আমাদের এই মটর বাইক র‍্যালি আটকেছে।  

হিন্দু সংহতির অভিযোগ, মাতৃভাষার সন্মান রক্ষার্থে উত্তর দিনাজপুরের দাঁড়িভিটের দুই বাঙালি হিন্দু ছাত্রকে এই রাজ্যের পুলিশ গুলি করে খুন করেছিল বলে অভিযোগ। তার প্রতিবাদে ও নিহতদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে এছাড়া রাজ্যে উর্দুভাষার অগ্রাসনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে আমাদের বাইক র‍্যালি। তৃণমূলের কৃতদাস হয়ে পুলিশ এই অনুষ্ঠান বানচাল করেছে বলে অভিযোগ হিন্দু সংহতির ব্যারাকপুর 
ডিভিশনের সাধারণ সম্পাদকশান্তনু সরকারের।

হিন্দু সংহিতার কেন্দ্রীয় সম্পাদক অজিত অধিকারী বলেন, বনগাঁ আরএস মাঠ 
থেকে আংরাইল পর্যন্ত একটি বাইক র‍্যালির আয়োজন করা হয়েছিল। বনগাঁ আর এস মাঠ থেকে 
র‍্যালি শুরু করে বনগাঁর জোড়া ব্রিজ এলাকায় 
আসতেই তা আটকে দেয় পুলিশ।এবং হিন্দু সংহতির দুই নেতা অজিত অধিকারী ও
শান্তনু সরকার সহ মোট ২৪ জনকে গ্রেফতার করে বনগাঁ থানার পুলিশ। পুলিশ জানিয়েছে, অনুমতি ছাড়াই এই বাইক র‍্যালি করা হয়েছে। তাই পুলিশ আটক করেছে।  
 

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here