কাঁকসায় সোনার দোকানে ডাকাতির ঘটনায় ধৃত ২ মহিলাসহ ৪ 

জয় লাহা, দুর্গাপুর, ২৭ অক্টোবর: কাঁকসায় সোনার দোকানে দুঃসাহসিক ডাকাতির ঘটনায় দুই মহিলাসহ ৪ জন ধরা পড়ল পুলিশের জালে। পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, ধৃতদের নাম মামুদ সেখ, ফিরোজ সেখ,  জোৎস্না দাস ও সুনিতা সাহা। ধৃতরা সামশেরগঞ্জের বাসিন্দা। ধৃতদের কাছ থেকে একটি পিস্তল ও ৪ রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার হয়েছে। বুধবার ধৃতদের দুর্গাপুর আদালতে তোলা হয়। 

উল্লেখ্য, গত ২৪ অক্টোবর সন্ধ্যায় কাঁকসার ত্রিলোকচন্দ্রপুর মোড়ে একটি সোনার দোকানে ডাকাতি হয়। বাধা দেওয়া ওই স্বর্ণ ব্যাবসায়ী তাপস দত্তকে ধারাল অস্ত্র দিয়ে দু’হাতে কুপিয়ে চম্পট দেয় দুষ্কৃতীরা। লক্ষাধিক টাকার সোনার গয়নার ব্যাগ নিয়ে চম্পট দেয় দুষ্কৃতীরা। ঘটনাকে ঘিরে বিস্তর চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। দোকানের মধ্যে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে থাকা তাপসবাবুকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে রাজবাঁধের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করে। বর্তমানে তিনি কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছায় কাঁকসা থানার পুলিশ। ঘটনার তদন্ত শুরু করে পুলিশ। মঙ্গলবার সামশেরগঞ্জ থেকে পুলিশ মামুদ সেখ, ফিরোজ সেখ,  জোৎস্না দাস ও সুনীতা সাহাকে গ্রেফতার করে নিয়ে আসে। জানা গেছে, ধৃত মামুদ ও ফিরোজের বিরুদ্ধে বাস ডাকাতির ঘটনার মামলা রয়েছে। কাঁকসা থানার পুলিশ জানিয়েছে, ধৃতদের কাছ থেকে একটি ৭.৬ এমএম পিস্তল, ৪ রাউন্ড কার্তুজ পাওয়া গেছে। ঘটনার তদন্ত চলছে।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here