লাদাখে ভারতের পাল্টা জবাবে মৃত্যু ৫ চিনা জওয়ানের, আহত ১১, খবর প্রকাশ চিনা সংবাদ মাধ্যমে

আমাদের ভারত, ১৬ জুন: যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন করে লাদাখ সীমান্তে চীনা সেনা হানা দেয়। সেই সংঘর্ষে শহীদ হয়েছেন ভারতীয় সেনার এক কর্নেল ও ২ জওয়ান। শান্তি রক্ষার বার্তা দিয়ে ধাপে ধাপে পিছিয়ে আসতে শুরু করেছিল ভারতীয় সেনা। কিন্তু সেই সময় হঠাৎই আঘাত হানে চিন। ফলে আত্মরক্ষার জন্য প্রতি পাল্টা জবাব দিয়েছে ভারতীয় সেনা। ভারতীয় সেনার পাল্টা জবাবে চিনের সেনার ৫ জন জওয়ানের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছে আরও ১১ জন চিনা জওয়ান, এমনটাই দাবি করেছেন চিনের সংবাদমাধ্যম গ্লোবাল টাইমসের চিফ রিপোর্টার ও সম্পাদক।

চিনের সংবাদ মাধ্যম গ্লোবাল টাইমসের সম্পাদক টুইটারে লিখেছেন, গালওয়ান উপত্যকায় ভারতীয় সেনার পাল্টা গুলিতে চিনা সেনার মৃত্যু হয়েছে। একই সঙ্গে তিনি লিখেছেন, “ভারতীয় সেনার উদ্দেশ্যে বলছি অহংকার দেখিয়ে চিনের সহ্যক্ষমতা কে দুর্বলতা ভেবে নেওয়ার কোনো কারণ নেই।” এছাড়াও তিনি লিখেছেন, চিন ভারতের সঙ্গে কোনো সংঘর্ষ চায় না। তবে আমরা ভয় পাই না।”

কিন্তু সংবাদ মাধ্যমের সম্পাদকের কথার সঙ্গে চিনা সেনার ব্যবহারের মিল নেই তা স্পষ্ট হয়ে গেছে। গত সপ্তাহে বেজিং ও দিল্লির কূটনৈতিক স্তর সহ সেনা আধিকারিকদের মধ্যে আলোচনা হয়েছে। সেখানে নিঃশর্তভাবে দু’দেশের সেনাই লাদাখ সীমান্তে শান্তি বজায় রাখার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। একই সঙ্গে ঠিক হয়েছে সীমান্ত থেকে দু’দেশই সেনাকে পিছিয়ে আনবে। কিন্তু সোমবার রাতে ভারতীয় সেনার ওপর অতর্কিত হামলা করেছে চিন।

ভারতীয় সেনা সূত্রে খবর, আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি চালায় ভারতীয় সেনা। চিনের গুলিতে শহীদ হয়েছেন ভারতীয় সেনার এক আধিকারিক ও ২ জওয়ান। অন্যদিকে চিনকেও পাল্টা উত্তর দেয় ভারত। তবে চিনা সেনার মৃতের সংখ্যা ভারতের তরফ থেকে এখনো নিশ্চিত করা হয়নি।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here