করোনা আতঙ্ক! ৬৫ বছরের বৃদ্ধার ঠাঁই বট গাছের নীচ

বিশ্বজিৎ রায়, আমাদের ভারত, হাওড়া, ৩০ এপ্রিল: একদিকে যখন মুখ্যমন্ত্রী করোনা নিয়ে আতঙ্ক ছড়াবেন না বলে প্রচার করছেন, তখন করোনা ছড়ানোর আতঙ্কে এক ৬৫ বছর বয়সী বৃদ্ধাকে ঘর ছাড়তে হল। এখন তাঁর ঠিকানা বলতে রাস্তার ধারের বট গাছের নীচ। ঘটনাটি ঘটেছে হাওড়ার মৌরিগ্রাম নজরুল-পল্লি এলাকাতে।

নজরুল পল্লিতে ঊষা সরকারের বাড়িতে স্বামীকে নিয়ে ভাড়া থাকতেন নমিতা মাইতি। জীবিকার জন্য গ্যাস্কিন গেটে এক ব্যক্তির বাড়িতে আয়ার কাজ করতেন। গত ২৮ এপ্রিল তার স্বামী লিভার সংক্রান্ত রোগে মারা যান। দেহ দাহ করতে মৃতদেহের সঙ্গে নমিতা দেবীও যান শ্মশানে। এরপর শ্মশান থেকে ফিরলে ওই বৃদ্ধাকে আর বাড়িতে ঢুকতে দেওয়া হয়নি। গ্রামবাসীর বক্তব্য মেডিকেল সার্টিফিকেট নিয়ে আসলে তবেই ঢুকতে দেওয়া হবে। আর বাড়ির মালিক গ্রামবাসীদের দিকেই আঙ্গুল তুলেছেন। তিনি বলেন, যা সিদ্ধান্ত তা নেবে গ্রামবাসীরাই।

এলাকার উপপ্রধানকে ফোন করলে তিনি গ্রামবাসীদের বক্তব্যের কথা বলেন। তিনি বলেন, গ্রামবাসীদের বোঝাতে চেয়েছেন কিন্তু বোঝাতে পারছেন না, এই বলে দায় সেরেছেন। এমতাবস্থায় ৬৫ বছরের বৃদ্ধা নমিতা মাইতির ঠিকানা বট গাছের তলা। তাঁর আশঙ্কা মৃত স্বামীর অশৌচ কাজ শেষ পর্যন্ত তিনি করতে পারবেন তো!

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here