রাজস্থান থেকে হাওড়ায় ফিরলেন ৯০ জন, সরকারি আইসোলেশন সেন্টারে না রাখায় উঠেছে প্রশ্ন

বিশ্বজিৎ রায়, আমাদের ভারত, হাওড়া, ৫ মে: প্রায় প্রায় দেড়মাস আটকে থাকার পর অবশেষে নিজের এলাকায় ফিরলেন হাওড়া জেলার ৯০ জন বাসিন্দা। আজই রাজস্থানের আজমীঢ় থেকে রাজ্যে এলেন নব্বই জনের এই দলটি। কিন্তু, তাঁদের সরকারি আইসোলেশন সেন্টারে না রেখে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকতে বলা হয়েছে। এই নিয়ে ইতিমধ্যেই প্রশ্ন উঠেছে।

সরকারের উদ্যোগে রাজস্থানের আজমীঢ় থেকে বিশেষ ট্রেন নিয়ে আসা হয় এঁদের। হাওড়া সহ অন্যান্য জেলার প্রায় ১২০০ জনকে বিশেষ ট্রেনে আনা হয়েছে। এদের বেশীরভাগই তীর্থ করতে গিয়েছিলেন আজমীঢ় শরীফে। কিছু সংখ্যক মানুষ কাজের তাগিদে ছিলেন রাজস্থানে।
অনেক অনুরোধের পর তাদের ফেরাতে উদ্যোগী হয় রাজ্য ও কেন্দ্র সরকার। সোমবার রওনা হওয়ার পর মঙ্গলবার তাদের নিয়ে ডানকুনি পৌছয় সেই ট্রেন। প্রায় বারোশো মানুষের মধ্যে হুগলী জেলার তিরিশ থেকে পয়ত্রিশ জন, হাওড়ার ৯০ জন। বাকি সকলে অন্য জেলার বাসিন্দা। সোমবারই এই ট্রেন আনার জন্য রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে ডানকুনিকে বেছে নেওয়া হয়। সরকারী উদ্যোগে সেখানে সব ব্যবস্থাই করা হয়েছিল।

হাওড়ার বাসিন্দাদের সেখান থেকে বাসে করে আনা হয় সাঁতরাগাছি। সেখানে থার্মাল গান দিয়ে তাদের তাঁদের আরএক দফা পরীক্ষা করা হয়। এরপর তাদের গাড়ি করে এলাকায় পৌঁছানোর ব্যবস্থা করা হবে। জানা গেছে আজ রাতের মধ্যেই বাড়ি পৌঁছে দেওয়া হবে। কিন্তু এদের সকলকেই হোম কোরেন্টিনে থাকার কথা বলা হয়েছে। কিন্তু তাঁদের কেন সরকারী কোয়ারেন্টিনে রাখা হল না, এই প্রশ্ন উঠেছে।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here