অভাবের তাড়নায় সব্জী চুরি করতে গিয়ে বিদ্যুৎ পৃষ্ট হয়ে মারা গেলেন এক গৃহবধূ

আমাদের ভারত, নন্দীগ্রাম, ২৫ এপ্রিল: পূর্ব মেদিনীপুর জেলার নন্দীগ্রাম থানার অন্তর্গত হানুভূঞ্যা গ্রামে উষারানী ঘোড়ই (৪২) নামে এক গৃহবধূ অভাবের তাড়নায় সব্জী চুরি করতে গিয়ে মারা গেলেন। জমির চারপাশে বিদ্যুতের তার থাকায় বিদ্যুৎ পৃষ্ট হয়ে মারা যান তিনি।

স্বামী গণেশ ঘোড়ই পেশায় দিনমজুর। স্থানীয়রা মনে করছেন যেহেতু সারা রাজ্য জুড়ে লকডাউন চলছে, স্বামী কর্মচ্যুত হয়েছেন। ফলে ভীষণ আর্থিক অভাব দেখা দিয়েছিল সংসারে। হয়তো এই অভাবের কারনে, উষা দেবী পাশের বাড়ির রবীন্দ্রনাথ জানার সবজি বাগানে চুরি করতে গিয়েছিল। সেখানে বিদ্যুত পৃষ্ট হয়ে মারা যান।

প্রায় দিনই সবজি চুরি হয়ে যেত, সেই কারণে রবীন্দ্রনাথ জানা সবজি বাগানে জিআই তার দিয়ে জমির চারিদিক ঘিরে তাতে বিদ্যুতের সংযোগ করে রেখেছিলেন। সেই তারে লেগে ঊষা দেবী বিদ্যুত পৃষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলে মারা যান বলে করছেন স্থানীয়রা। সকালে রবীন্দ্রনাথ জানার নজরে আসে জমির পাশে মৃত অবস্থায় পড়ে রয়েছেন উষা দেবী। 

এই ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়ায় এলাকায়। স্থানীয়দের দাবি মৃতের পরিবারের হাতে ১০ লক্ষ টাকা তুলে দিতে হবে এবং জমির মালিককে উপযুক্ত শাস্তি দেয়া হোক। কারণ না জানিয়ে কোনও সতর্কতা মূলক লেখা না দিয়ে বিদ্যুতের সংযোগ করে রেখে ছিলেন।

ঘটনার খবর পেয়ে নন্দীগ্রাম থানার পুলিশ এসে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রবীন্দ্রনাথ জানাকে থানায় নিয়ে যায় এবং মৃতদেহটিকে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠায়।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here