গঙ্গাসাগর মেলার গাইডলাইন তৈরি করতে বৃহস্পতিবার নবান্নে প্রশাসনিক বৈঠক

রাজেন রায়, কলকাতা, ১৮ নভেম্বর: রাজ্যের প্রত্যেকটি উৎসব পালনের সময় বিশেষভাবে সতর্ক থাকছে রাজ্য প্রশাসন। দুর্গাপুজো থেকে কালীপুজো, ছটপুজো, কার্তিক পুজো, জগদ্ধাত্রী পুজো প্রত্যেক পুজোয় বিধিনিষেধ আরোপ হয়েছে। এবার সামনে আসছে গঙ্গাসাগর মেলা। তাই কিভাবে এই মেলা সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করা যায়, তা নিয়ে সিদ্ধান্ত নিতে প্রশাসনিক কর্তাদের বৃহস্পতিবার নবান্নে ডেকে পাঠিয়েছেন মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্য সচিব ছাড়াও বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন রাজ্যের একাধিক প্রশাসনিক কর্তা। কলকাতা, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনার প্রশাসনিক কর্তারা এই বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন।

প্রসঙ্গত দুর্গাপুজো কালীপুজো পেরিয়ে এখন রাজ্য প্রশাসনের সামনে নয়া চ্যালেঞ্জ ছট পুজো। এই পুজোয় প্রত্যেকবারই বিভিন্ন জায়গায় বিপুল সমাগম হয়। রবীন্দ্রসরোবরে এবারে ছট পূজা না করার জন্য সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ থাকায় বিকল্প একাধিক জলাশয় এবং কৃত্রিম জলাধার তৈরি করেছে রাজ্য প্রশাসন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত পুণ্যার্থীরা সেটা মানবে কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন থেকেই যাচ্ছে।

এই পরিস্থিতিতে গঙ্গাসাগর মেলা নিয়েও মামলা দায়ের হতে পারে হাইকোর্টে, এমন আশঙ্কা করছে রাজ্য প্রশাসন। চলতি বছরের প্রত্যেকটি পুজোতেই হাইকোর্টকে হস্তক্ষেপ করতে হয়েছে। কিন্তু তার আগেই প্রশাসনিক স্তরে পরিকল্পনা করে রাখতে চাইছেন নবান্নের শীর্ষ কর্তারা।
প্রয়োজনে হাইকোর্টের নির্দিষ্ট গাইডলাইন মেনে গঙ্গাসাগর মেলা পরিচালনা করতে চায় রাজ্য প্রশাসন। কিন্তু কোনওভাবেই যাতে সংক্রমণ ফের বেড়ে না যায়, তার দিকে সতর্ক নজর রাখছেন নবান্নের প্রশাসনিক কর্তারা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here