অমর জওয়ান জ্যোতির অগ্নিশিখা মিশে গেল ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়ালের অনির্বাণ অগ্নিশিখার সাথে

আমাদের ভারত, ২০ জানুয়ারি:রাজধানী দিল্লির ইন্ডিয়া গেটের সামনে গত পাঁচ দশক ধরে জ্বলছিল অমর জওয়ান জ্যোতি। অবশেষে সেই অগ্নিশিখা শুক্রবার মিলিয়ে দেওয়া হল নিকটস্থ ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়ালের অগ্নি শিখার সঙ্গে।

১৯৭১ সালে পাকিস্তানের সঙ্গে যুদ্ধে জয়ী হয় ভারত। ভারতীয় জওয়ানদের রক্ত ও মুক্তিযোদ্ধাদের বলিদানেই তৈরি হয় আজকের বাংলাদেশ। সেই যুদ্ধে শহীদ জাওয়ানদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে স্মারক তৈরি। ১৯৭২ সালে সাধারণতন্ত্র দিবসে এটি উদ্বোধন করেন তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী। তারপর থেকে প্রতিবারই সাধারণতন্ত্র দিবসের সকালে অমর জওয়ান জ্যোতিতে শ্রদ্ধা জানাতে দেখা যেত দেশের রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী,নৌসেনা, বায়ুসেনা ও স্থল সেনার প্রধানদের।

কিন্তু ৫০ বছর পর আজ সেই অনির্বাণ শিখা জাতীয় যুদ্ধ স্মারকে মিশিয়ে দেওয়া হল। ২০১৯ সালে ইন্ডিয়া গেটের কাছে ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়াল উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সেখানে গ্রানাইট পাথরের গায়ে সোনালী অক্ষরে খোদাই করা রয়েছে ২৫ হাজার ৯৪২ জন শহীদের নাম। সেখানে১৯৪৭-৪৮ সাল থেকে শুরু করে গালওয়ানে চীনের সঙ্গে সংঘর্ষে শহীদ জাওয়ানদের নামও রয়েছে। জঙ্গি দমন অভিযানের শহীদ হওয়া জাওয়ানদের নাম রয়েছে। ২০২০ পর থেকে সাধারণতন্ত্র দিবসের সকালে ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়াল শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন প্রধানমন্ত্রী। অমর জওয়ান জ্যোতির শিখা ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়ালের অনির্বাণ শিখায় মেলানো হয়েছে।

শুক্রবার বিকেলে একটি অনুষ্ঠানের মাধ্যমে ওয়ার মেমোরিয়ালের আগুনে মিশে যায় অমর জওয়ান জ্যোতির আগুন। বিরোধীরা কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্তের সমালোচনায় মুখর হয়েছে। যদিও কেন্দ্র জানিয়েছে অমর জওয়ান জ্যোতি মিশে গেছে কিন্তু তা নেভানো হচ্ছে বলে অযৌক্তিক অপপ্রচার করছে বিরোধীরা।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here