বিজেপি নতুন সহকারী সাধারণ সম্পাদক হলেন অমিতাভ চক্রবর্তী, তিনি এভিবিপি ও আরএসএস নেতা

নীল বনিক, আমাদের ভারত, ২৪ ডিসেম্বর : চেয়ার থাকলেও পুরোপুরি সুব্রত চ্যাটার্জির উপর ভরসা রাখতে পারছে না দিল্লি। তাই বিজেপির সংগঠন সম্পাদক সুব্রত চ্যাটার্জির একজন ডেপুটি নিযুক্ত করল দিল্লি। রাজ্য বিজেপির নতুন সহকারি সম্পাদক হলেন অমিতাভ চক্রবর্তী।

আগেই সুব্রত চ্যাটার্জির একজন ডেপুটি করা হয়েছিল। কিশোর বর্মনকে সুব্রত চ্যাটার্জির সহকারী করা হয়েছিল সদ্যসমাপ্ত লোকসভা ভোটে। এবার রাজ্য বিজেপিতে সাংগঠনিক পরিবর্তন করার সময় সুব্রতবাবুর আরও একজন ডেপুটি করেদিল দিল্লি। অমিতাভ চক্রবর্তী রাজ্য বিজেপির নতুন সহকারী সাধারন সম্পাদক হতেই তাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন কিশোর বর্মন।

দলীয় সূত্রের খবর অমিতাভ চক্রবর্তী ছাত্রজীবন থেকেই সংঘের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। প্রথমে সংঘের ছাত্র সংগঠন এবিভিপির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। পরে সংঘের মূল কাজের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন।

যদিও রাজ্য বিজেপিতে অমিতাভ চক্রবর্তীর পদার্পনে সুব্রত চ্যাটার্জির গুরুত্ব কমলো একথা বিজেপির রাজ্য সভাপতির অনুগামীরা মানছেন না। তাদের যুক্তি দল বড় হচ্ছে। সামনে দলের কাছে বড় পরীক্ষা। তাই সংগঠনের কাজে গতি আনতেই দলের সংগঠন সম্পাদক সুব্রত চ্যাটার্জির একজন সহকারি করা হল মাত্র।

যদিও দিল্লির এই সিদ্ধান্তকে নৈতিক জয় হিসেবে দেখছেন রাজ্য বিজেপিতে সুব্রত চ্যাটার্জির বিরুদ্ধে থাকা নেতারা। কয়েকদিন ধরেই সুব্রত চ্যাটার্জিকে সরাতে দিল্লিতে তৎপর হয়েছিল রাজ্য বিজেপির কয়েকজন নেতা। তার জায়গায় অাসতে পারেন এমন কয়েকজন নেতার নামও ভাসিয়ে দিয়েছিল তারা। যদিও সুব্রত চ্যাটার্জির পদ এখনও বহাল রেখেছে দিল্লি। তবে তার সহকারী পাঠিয়ে হয়তো বা সুব্রত চ্যাটার্জিকে বার্তা দিল দিল্লি।
অমিতাভ চক্রবর্তী সংঘের ছাত্র সংগঠন এবিভিপির রাজ্য সম্পাদক ছিলেন। পরে তিনি ক্ষেত্রীয় সংগঠন সম্পাদক এবং সর্বভারতীয় সম্পাদক হয়েছিলেন। গত কয়েক বছর ধরে তিনি ওড়িশায় বিজেপির কাজ দেখাশোনা করছিলেন। সেখানেও তিনি সহকারি সংগঠন সাধারণ সম্পাদক পদে ছিলেন।

1 টি মন্তব্য

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here