২০২১-এর জুন পর্যন্ত মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুখ্যমন্ত্রী থাকা নিয়ে প্রশ্ন তুললেন অর্জুন সিং

আমাদের ভারত, হাওড়া, ১ জুলাই: প্রধানমন্ত্রী যেই বলেছে নভেম্বর মাস পর্যন্ত বিনামূল্যে রেশম দেবেন সঙ্গে সঙ্গে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ২০২১ জুন মাস পর্যন্ত রাজ্যের মানুষকে বিনামূল্যে রেশন দেওয়ার কথা বলেছেন। উনি ২০২১ এর জুন মাস পর্যন্ত থাকলে তবে তো বিনামূল্যে রেশন দেবেন! আর ওনার আছেটা কি যে উনি দেবেন। বুধবার উলুবেড়িয়া পৌরসভা ১১ নং ওয়ার্ডের চককাশিতে বিজেপির এক অনুষ্ঠানে যোগ দিতে এসে এই ভাবেই মুখ্যমন্ত্রীকে কটাক্ষ করলেন সাংসদ অর্জুন সিং।

এদিন বিজেপি সাংসদ জানান, আমি দীর্ঘদিন ওনার সাথে রাজনীতি করেছি আমি জানি মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ ছাড়া বলে কিছু হয় না। তার অভিযোগ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, তার ভাইপো হাজার হাজার কোটি টাকার মালিক হয়ে গেছেন। এদের ১০ বছর আগেকার ইনকাম ট্যাক্সের ফাইল আর এখনকার ফাইল দেখলে পার্থক্যটা বোঝা যাবে। প্রশান্ত কিশোর আসার পর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দলের নেতাদের কাছ থেকে কাট মানি ফেরত করিয়েছেন কিন্তু কজনকে গ্রেপ্তার করিয়েছেন সেই নিয়েও এদিন প্রশ্ন তোলেন সাংসদ অর্জুন সিং। টাকা নেওয়ার পর সেটা ফেরত দিলেই কি অপরাধ শেষ হয়ে যায়? আসলে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এটা একটা গিমিক বলে দাবি করেন অর্জুন সিং।

পরিযায়ী শ্রমিক নিয়ে এদিন অর্জুন সিং দাবি করেন এখানে মানুষ যখন বছরে ২০ হাজার টাকা আয় করছে তখন বাইরের রাজ্যে মাসে ২০ হাজার টাকা আয় করছে তাহলে কি করতে মানুষ এই রাজ্যে পড়ে থাকবে। এদিন তিনি অভিযোগ করেন, এই রাজ্যে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ছবি লাগানো কুপন ছাড়া সাধারণ মানুষ রেশন পায়না। রাজ্যের অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্রকে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, যার হাতে ১০ টাকাও নেই তিনি রাজ্যের মানুষকে ১০ হাজার টাকার গল্প শোনাচ্ছেন। নতুন কোনও শিল্পপতি রাজ্যে বিনিয়োগ করতে আসছে না পুরনো শিল্পপতিরাই জামা পাল্টে এসে সই করে দিয়ে যাচ্ছ।

বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের উপর আক্রমণ প্রসঙ্গে অর্জুন সিং বলেন, পুলিশ ও গুন্ডাদের সঙ্গে নিয়ে তৃণমূল রাজ্যে সন্ত্রাস চালাচ্ছে। তবে শুধু বিজেপি কর্মীরাই নয় সাধারণ মানুষও এর শিকার হচ্ছে। তার দাবি, রাজ্যে তৃণমূল না করলে মানুষকে শেষ করে দেওয়া হচ্ছে।

অন্যদিকে নিজের বিধানসভা এলাকায় অর্জুন সিংয়ের এই বক্তব্যকে নস্যাৎ করে দিয়েছেন উলুবেড়িয পূর্ব কেন্দ্রের বিধায়ক ইদ্রিস আলী। তিনি বলেন, শুধু রাজ্যের না সারা দেশের মানুষ জানে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সততার প্রতীক। সুতরাং বিজেপি সাংসদ প্রচারের আলোয় আসতে চাইছে বলে মুখ্যমন্ত্রীর নামে কুৎসা রটাচ্ছে। মুখ্যমন্ত্রী রাজ্যের প্রতিটি মানুষের কাছে অনেক আগে থেকেই রেশন পৌঁছে দিচ্ছেন। প্রধানমন্ত্রী শুধু রাজনীতি করার জন্য ছটপূজা পর্যন্ত দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছেন বলে দাবি করেন ইদ্রিস আলী। ২০২১ এ বিজেপি ক্ষমতায় আসা সম্পর্কে অর্জুন সিংকে পাল্টা আক্রমণ করে ইদ্রিস আলী বলেন, বিজেপি রাজ্যে ক্ষমতায় আসার দিবাস্বপ্ন দেখছে। তৃণমূল আরও ৫০ বছর রাজ্যে ক্ষমতায় থাকবে বলেও তার দাবি। অভিষেকের সম্বন্ধে অর্জুন সিংয়ের মন্তব্যকে পাল্টা আক্রমণ করে অর্জুন সিংকে নির্বাচনের লড়াই করার চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দেন বিধায়ক ইদ্রিস আলি।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here