সচেতনতার বার্তা, শান্তিপুরের সূত্রাগড়ের অরুণ ঘোষ তাঁতের কাপড়ের ওপর ফুটিয়ে তুলছেন করোনার নক্সা

আমাদের ভারত, নদিয়া, ২৭ সেপ্টেম্বর: সরকারি নির্দেশে বার বার করে বলা হচ্ছে সামাজিক দূরত্ব, স্যানিটাইজার ও মাস্ক ব্যবহার করতে। কারণ পৃথিবীতে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা দিন দিন লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। তবে কিছু দিন ধরে লক্ষ্য করা যাচ্ছে রাস্তা ঘাটে বিশেষ করে মহিলাদের মুখে মাস্কের ব্যবহার কম। তাই শান্তিপুরের সূত্রাগড়ের বছর ষাটের অরুণ ঘোষ তাঁত কাপড়ের ওপর করোনা নক্সা ফুটিয়ে তুলছেন। তাঁর দাবি একটাই, যে সাধারণ মানুষকে সচেতন ও সতর্ক করা।

বাড়ি থেকে শাড়িটা পড়ে যখন মহিলারা রাস্তায় বের হবেন তখন আঁচল দেখে মনে হবে মাস্কটা মুখে দিতে। স্যানিটাইজটা ব্যাগে ঢোকাতে। মানুষকে বার বার সতর্ক করে যদি সংক্রমণটা কমে তাহলে এটাই তার কাছে শ্রেষ্ঠ পাওনা। তিনি বলেন, শাড়ির চাহিদা আছে, তবে যদি ট্রেন চলত বাস চলত, তাহলে বাংলার ঘরে ঘরে সচেতনতার নজির হিসাবে শান্তিপুরের এই শাড়ির চাহিদাও বাড়ত। পৌঁছে যেত বাংলার মা-বোনেদের ঘরে ঘরে। তবে সব কিছু বন্ধ থাকার পরেও যাদের হাতে এই শাড়ি পৌঁছাবে তাঁরা নিশ্চই সচেতন হবেন।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here