বিজেপি কর্মীদের ওপর আক্রমণ হলে সাংবিধানিক পদক্ষেপ‌ হবে, বঙ্গ বিজেপির পাশে দাঁড়িয়ে হুঁশিয়ারি রবিশঙ্কর প্রসাদের

আমাদের ভারত, ১৪ সেপ্টেম্বর: মঙ্গলবার বিজেপির নবান্ন অভিযান ঘিরে ধুন্ধুমার পরিস্থিতি তৈরি হয়। পদ্ম শিবিরের কর্মী-সমর্থকদের সামাল দিতে হিমশিম খায় পুলিশ। এরপর বুধবার দিল্লিতে সাংবাদিক বৈঠক করে রবিশঙ্কর প্রসাদ বুঝিয়ে দিয়েছেন বিজেপির রাজ্য নেতৃত্বের আন্দোলনের সব রকম ভাবে পাশে থাকবে কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব। বরং তার পাল্টা হুঁশিয়ারি বিজেপি কর্মীদের ওপর আক্রমণ হলে সাংবিধানিক পদক্ষেপ‌ হবে।

মঙ্গলবার বিজেপির নবান্ন অভিযান ঘিরে যে পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল সে প্রসঙ্গে রবিশঙ্কর প্রসাদ বলেন, “পশ্চিমবঙ্গে পুলিশের যে অত্যাচার হয়েছে তার তীব্র নিন্দা জানাই। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তিনবারের মুখ্যমন্ত্রী। কিন্তু আপনার এখন কি হয়ে গিয়েছে? আপনি যে কাজ করছেন তা আপনার নিজের রাজনৈতিক উত্থানের থেকে সম্পূর্ণ বিপরীত। আপনি নিজে বামেদের অত্যাচারের বিরুদ্ধে লড়েছেন আর আজ তার থেকেও বেশি অত্যাচার বিজেপির উপরে করছেন” এর মানে কি?” কটাক্ষের সুরে তিনি বলেন, “এটা কি তৃণমূলের অন্দরের সমস্যা? উত্তরাধিকার সংঘাত চলছে? এখান থেকে নজর ঘোরাতেই কি বিজেপি কর্মীদের ওপর পুলিশের অত্যাচার?”

পশ্চিমবঙ্গ সরকারের বিরুদ্ধে আক্রমণের সুরে রবিশঙ্কর প্রসাদ বলেন, “নবান্ন অভিযানে গতকাল বিজেপির নেতা ও কর্মীদের ওপর অত্যাচার করা হয়েছে। গণতন্ত্র হরণ করা হয়েছে। মমতা সরকারের আইন বলে আর কিছুই নেই।”

নাম না করে সাম্প্রতিক সময়ে উঠে আসা দুর্নীতির অভিযোগ প্রসঙ্গ তুলে রবিশঙ্কর প্রসাদ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে খোঁচা দিয়ে বলেন, “তৃণমূল কথার অর্থ মাটির কাছাকাছি। কিন্তু যারা মাটির কাছাকাছি থাকেন তারা এভাবে অত্যাচার করেন না। আপনি তৃণমূলের নাম বদলে দিন।”

মঙ্গলবারেই পুলিশি অত্যাচারের অভিযোগ তোলা হয়েছে, সেই বিষয়ে সাংবাদিক বৈঠকে তিনি বলেন, ‘আমাদের প্রায় এক হাজার কর্মী জখম, প্রায় ৪০০ কর্মী হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন তাদের প্রাথমিক চিকিৎসার পর ছেড়ে দেওয়া হয়। এখনো ৩০ জন মত কর্মী গুরুতর জখম হয়ে হাসপাতালে ভর্তি।” তিনি স্পষ্ট করে দেন এইভাবে তৃণমূলের বিরুদ্ধে বিজেপির আন্দোলনকে আটকানো যাবে না।

তিনি রাজ্যের শাসকদলের বিরুদ্ধে আক্রমণ শানিয়ে বলেন, রাজ্যের পুলিশ কিভাবে দলদাসের ভূমিকা পালন করেছে সেটা গতকাল নবান্ন অভিযানে যেভাবে দলীয় কর্মীরা আক্রান্ত হয়েছে তা থেকে স্পষ্ট হয়ে গেছে। শুভেন্দু অধিকারীকে মহিলা পুলিশ আটক করেছে যা অবাক করার মত।” এর পাশাপাশি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকে রিপোর্ট জমা দেওয়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “নবান্ন অভিযানে বিজেপি নেতা ও কর্মীদের ওপর পুলিশ যেভাবে হামলা চালিয়েছে তা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হবে দলে। এই ঘটনায় যাবতীয় সাংবিধানিক পদক্ষেপ করতে পিছপা হবেন না দল।”

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here