কলকাতায় অপহৃত পুত্রবধূর সম্ভ্রম বাঁচাতে গিয়ে প্রাণ গেল শ্বশুরের

13

সৌভিক বন্দ্যোপাধ্যায়, কলকাতা, ৫ ফেব্রুয়ারি: রাতের শহরে ভয়ঙ্কর ঘটনায় ফের প্রশ্নের মুখে নারী নিরাপত্তা। বাড়ির গৃহবধূর সম্ভ্রম বাঁচাতে গিয়ে প্রাণ হারাতে হল তার শ্বশুরকে। ঘটনাস্থলের সিসিটিভি ফুটেজ দেখে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার রাতে ট্যাংরা এলাকায় গোবিন্দ খটিক রোডে জোর করে এক মহিলাকে গাড়িতে টেনে তোলার অভিযোগ। সেই সময় পুত্রবধূকে বাঁচাতে রুখে দাঁড়ান তাঁর শ্বশুর ও এক আত্মীয়। বেগতিক বুঝে শ্বশুরের উপর দিয়েই গাড়ি চালিয়ে নিয়ে যায় দুষ্কৃতীরা। পরে হাসপাতালে মৃত্যু হয় শ্বশুরের।

পুলিশ সূত্রে খবর, মঙ্গলবার রাতে পরিবারের সঙ্গে বিয়েবাড়ি থেকে বাড়ি ফিরছিলেন ওই বধূ। অভিযোগ, দ্রুত গতিতে আসা একটি অ্যাম্বুল্যান্স তাঁকে জোর করে গাড়িতে তোলার চেষ্টা করে। বধূর চিৎকার শুনে তাঁর শ্বশুর ও এক আত্মীয় চলে আসেন ঘটনাস্থলে। এরপরই অ্যাম্বুল্যান্সটি পালানোর চেষ্টা করে। অভিযোগ, গাড়িটি ধাক্কা মারে শ্বশুরকে। এতই বেপরোয়া ছিল তারা, যে প্রৌঢ়কে বেশ কিছুটা টেনে হিঁচড়ে নিয়ে যায় অ্যাম্বুল্যান্স।

প্রত্যক্ষদর্শীদের বয়ান অনুসারে, গাড়িটি এমনভাবে প্রৌঢ়কে টানা হিঁচড়ে নিয়ে যায়, তাঁর গায়ে কোনও বস্ত্র আর অবশিষ্ট ছিল না। আশঙ্কাজনক অবস্থায় এনআরএস হাসপাতালে তাঁকে নিয়ে যাওয়া হলে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। তবে এই ঘটনায় প্রাণে রক্ষা পান বধূ।
হামলাকারীদের এখনও ধরা যায়নি। খোঁজ মেলেনি অ্যাম্বুল্যান্সের। এলাকার সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখে তদন্তে পুলিশ।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here