এগরা বইমেলার মঞ্চে দিলীপ ঘোষের সঙ্গে থাকায় তৃণমূল বিধায়ক’কে শোকজ, পুরপ্রধানকে তিরস্কার

আমাদের ভারত, পূর্ব মেদিনীপুর, ৪ জানুয়ারি: একই মঞ্চে দিলীপ ঘোষের সঙ্গে তৃণমূলের বিধায়ক সমরেশ দাসের অবস্থান ঘিরে তৃণমূলের অন্দরমহলে সোরগোল পড়ে গিয়েছে। বিধায়ক সমরেশ দাস’কে শোকজ করেছেন তৃণমূল নেতৃত্ব। মঞ্চে থাকা এগরা পুরসভার কাউন্সিলর এবং পৌর প্রধানকে তিরস্কার করা হয়েছে। বরখাস্ত করা হয়েছে তৃণমূলের এগরা ব্লক সভাপতিকে।

গতকাল সন্ধ্যায় এগরা শহরে বইমেলার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হয়। এই উপলক্ষে বিজেপির রাজ্য সভাপতি ঘোষ উপস্থিত ছিলেন উদ্বোধনী অনুষ্ঠান মঞ্চে। একই মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন তৃণমূলের বিধায়ক সমরেশ দাস ও এগরা পুরসভার পুরপ্রধান ও কয়েকজন কাউন্সিলর ও তৃণমূলের ব্লক নেতৃত্ব। অনুষ্ঠান চলাকালীন বিধায়ক সমরেশ দাস ও বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের মধ্যে সৌজন্য মূলক কথাবার্তা হয়। আর এই নিয়েই তৃণমূল অন্দরমহলে শোরগোল পড়ে গিয়েছে।

তৃণমূলের জেলা সভাপতি শিশির অধিকারী জানিয়েছেন, এই ঘটনায় শোকজ করা হয়েছে বিধায়ক সমরেশ দাস’কে। তিরস্কার করা হয়েছে এগরা পুরসভার পুরপ্রধান ও উপস্থিত থাকা কাউন্সিলরদের। অপসারিত করা হয়েছে তৃণমূলের ব্লক সভাপতিকে। শিশির অধিকারী আরো বলেছেন, বিজেপির রাজ্যে বিশৃংখলা সৃষ্টি করে চলেছে সেই বিজেপি নেতার সঙ্গে একই মঞ্চে বসা ঠিক হয়নি। সমরেশ দাস জানিয়েছেন, মেলায় সব রাজনৈতিক দলের ব্যক্তিরা থাকেন। তিনিও থেকেছেন। এই ব্যাপারে শোকজের কোনও চিঠি বা টেলিফোন কিছুই পাননি তিনি পেলে পরে উত্তর দেবেন।

বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ অবশ্য বলেছেন, এটাই এগারার সংস্কৃতি। সাংসদ হিসেবে আমি প্রথম এলাম এই অনুষ্ঠানে।
এগরা বইমেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক মৃন্ময়ী মিশ্র বলেছেন, দীর্ঘদিন ধরেই এগরায় এই সংস্কৃতি চলে আসছে। আগেও বহু বার বিধায়ক সাংসদদের একই মঞ্চে দেখা গেছে। এটা কোনো রাজনৈতিক অনুষ্ঠান নয়। বিধায়ক সাংসদ হিসেবে ওঁনাদের ডাকা হয়েছে।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here