বিকল্প পরিবহণ মাধ্যম হিসেবে ছাড়পত্র সাইকেলের! পুলিশকে লেন তৈরির নির্দেশ

রাজেন রায়, কলকাতা, ৮ জুন: বাস, অটো, ট্যাক্সি চালু হলেও লোকাল ট্রেন এবং মেট্রো এখনও চালু হয়নি। তাই দূর দূরান্ত থেকে বিকল্প পরিবহণ মাধ্যম হিসেবে বাইক, স্কুটির সঙ্গে সাইকেলও ব্যবহার করছেন বহু মানুষ। কলকাতার রাস্তায় লেনের মাধ্যমে বাইসাইকেল চলুক, এমন দাবি জানিয়ে আসছিলেন সাইকেলপ্রেমী সংগঠনগুলি। এবার কলকাতা ও শহরতলির রাস্তায় বাই সাইকেল চালানোয় অনুমতি দিল রাজ্য সরকার। সোমবার মন্ত্রিসভার বৈঠকের পরে নবান্নের সাংবাদিক বৈঠকে এই ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সাইকেলের জন্য নির্দিষ্ট লেন তৈরি করার নির্দেশও দেন মুখ্যমন্ত্রী।

এদিন মুখ্যমন্ত্রী কলকাতা-সহ সমস্ত পুলিশ কমিশনারদের উদ্দেশে বলেন, ‘বড় রাস্তা বাদ দিয়ে কোন কোন মাঝারি ও ছোট রাস্তা দিয়ে সাইকেল চালানো যায় তা ঠিক করতে হবে। যাঁরা সাইকেল নিয়ে কর্মস্থলে যাবেন, তাঁরা যেন সাবধানে প্যাডেল করেন।’ এদিন মুখ্যমন্ত্রী আরও বলেন, “অফিস যেতে দেরি হলে মহাভারত অশুদ্ধ হবে না। কিন্তু একটা জীবন চলে গেলে সেটা বড় ক্ষতি।”

প্রসঙ্গত, কলকাতায় গত কয়েকদিন ধরেই সাইকেল চলার সংখ্যা বেড়েছে। কলকাতা লাগোয়া হাওড়া, হুগলির অনেক জায়গা থেকেই সাধারণ মানুষ সাইকেল নিয়ে কাজে যাচ্ছেন। এদিন তাতেই সরকারি সিলমোহর দিলেন মুখ্যমন্ত্রী। এদিন এ নিয়ে কলকাতা সাইকেল সমাজের আহ্বায়ক রঘু জানা বলেন, ‘বিষয়টি অবশ্যই অভিনন্দনযোগ্য। মানুষ নিজেও বিকল্প পরিবহণ মাধ্যম হিসেবে সাইকেল বেছে নিচ্ছে। কিন্তু সরকার ঘোষণা করার আগে যদি বিকল্প সাইকেল লেন চূড়ান্ত করে ঘোষণা করত, তাহলে অন্তত দুর্ঘটনার কোনও সম্ভাবনা থাকত না।’

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here