প্রধানমন্ত্রীর বক্ত্যব্যের যে বড় দিকটি দেখালেন বিজেপি নেতা রাহুল সিনহা

নীল বনিক, আমাদের ভারত, কলকাতা, ১৩ মে: গতকাল জাতির উদ্দেশ্যে প্রধানমন্ত্রীর ভাষণের মূল বক্তব্য ছিল, স্বদেশী জিনিসের ব্যবহার করুন এবং স্বদেশি জিনিসের প্রচার করুন। আত্মনির্ভরশীল ভারত গড়ে তুলতে স্বদেশি জিনিসের ব্যবহারের উপরেই জোর দিতে চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী, এই কথা বললেন বিজেপি নেতা রাহুল সিনহা

আজ রাহুল সিনহা বলে, প্রধানমন্ত্রী সঠিক সময়ে আর্থিক প্যাকেজ ঘোষনা করেছেন। বুধবার কলকাতায় তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী সারাদেশের জন্য, ২০ লক্ষ কোটি টাকার প্যাকেজ ঘোষণা করেছেন, যা দেশের জিডিপির ১০ শতাংশ। প্রধানমন্ত্রী সবার কথা ভেবেই এমন আর্থিক প্যাকেজের ঘোষনা করেছেন। হিসাবের সুবিধার জন্য বলছি, যদি এইটাকা সরাদেশের মোট জনসংখ্যা দিয়ে ভাগকরা যায় তাহলে প্রত্যেকের জন্য বরাদ্দ ১৫ হাজার ৩০০ টাকার কাছাকাছি হবে। এতে দেশের প্রান্তিক মানুষ থেকে উদ্যোগপতি সকলেই উপকৃত হবেন। দেশের সর্বসাধারনের জন্য এমন আর্থিক প্যাকেজ ঘোষনা করার জন্য আমরা খুশি বলেও জানান বিজেপির কেন্দ্রীয় সম্পাদক রাহুল সিনহা।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী দেশীয় ছোট ছোট উদ্যোগপতিদের সাহায্য করার কথাই বলেছেন। কারণ প্রধানমন্ত্রী তার বক্তব্যে স্থানীয় স্তরে উৎপাদিত জিনিসের ব্যবহারে গুরুত্ব দিতে বলেছেন। তিনি বলেছেন এই লকডাউনের সময় স্থানীয় বাজারই আমাদের বাঁচিয়েছে। রাহুল সিংহ মনে করেন, প্রধানমন্ত্রী মূলত বলতে চেয়েছেন স্থানীয় মার্কেটের গুরুত্বের পাশাপাশি স্বদেশী জিনিসের ব্যবহার এবং স্বদেশী জিনিসের প্রচার করতে বলেছেন প্রধানমন্ত্রী।

পাশাপাশি নবান্ন থেকে মঙ্গলবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আক্রমনের জবাব এদিন দিলেন রাহুল সিনহা। তিনি বলেন, মুখ্যমন্ত্রী অভিযোগ করছেন কেন্দ্র বারবার তাদের উপর অ্যাডভাইজার বসানোর চেষ্টা চলাচ্ছেন। আমি মুখ্যমন্ত্রীকে বলছি কেন্দ্র তিনসপ্তাহ হাত গুটিয়ে বসেছিল। রাজ্যে ধর্মবিশেষ লকডাউন চলছিল। করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা গোপান করা হচ্ছিল। আক্রান্তের সঠিক তথ্য দেওয়া হচ্ছিল না। তারপরেই কেন্দ্রীয় সরকার রাজ্যে টিম পাঠিয়েছে।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here