অশোকনগরে বিজেপি কর্মীদের ওপর হামলা, অভিযোগ প্রাক্তন তৃণমূল কাউন্সিলারের বিরুদ্ধে

আমাদের ভারত, উত্তর ২৪ পরগণা, ১৮ সেপ্টেম্বর:
প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র দামোদর মোদীর ৭০তম জন্মদিন পালন করায় বিজেপি নেতা-কর্মী ও সমর্থকদের মারধর করার অভিযোগ উঠল তৃণমূলের প্রাক্তন কাউন্সিলার অতীশ সরকার ও তার দলবলের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার রাত ১২টা নাগাদ ঘটনাটি ঘটেছে অশোকনগর পৌরসভার ১২ নম্বর ওয়ার্ডে। এই ঘটনায় আহত হয় বিজেপির বেশ কয়েকজন। তাতেও রাগ মেটেনি আতীশবাবুর ফোন করে এক বিজেপি কর্মীকে হুমকি দিচ্ছে। এই এলাকায় কেউ বিজেপি করলে খুন করে দেবেন তিনি। বিজেপির পক্ষ থেকে অশোকনগর থানায় তৃণমূল নেতার বিরুদ্ধে অভিযোগ করলেও, পুলিশ এখনও কাউকে গ্রেফতার করেনি।

স্থানীয় ও বিজেপি সূত্রের খবর, এদিন সকাল থেকে নরেন্দ্র মোদীর জন্মদিন অশোকনগর পৌরসভার ১২ নম্বর ওয়ার্ডে দুঃস্থ পড়ুয়াদের বই ও বস্ত্র বিতরণ করে বিজেপি। সেখানে তৃণমূলের দুষ্কৃতীরা হামলা চালাতে এলে পুলিশ এসে বাধা দেয়। সেই রাগে রাত ১২টা নাগাদ ওই অনুষ্ঠানে উপস্থিত এলাকার বিজেপি নেতা ও কর্মীদের বাড়ি হামলা চালায় তৃণমূলের প্রাক্তন কাউন্সিলার অতীশ সরকার ও তার দলবল বলে অভিযোগ। এই ঘটনায় আহত হয়েছেন বিজেপি নেতা স্বপন হোড়, গুপি সাহা, শুভদীপ মুখার্জি, কানাই দে, প্রসেনজিৎ পাল, দেবজানি দত্ত, হেমলতা বিশ্বাস।

বিজেপি নেতা স্বপনবাবু বলেন, মোদিজীর ৭০ তম জন্মদিন পালন করার কারণে হিংসার পরিপেক্ষিতে আমাদের মারধর করা হয়েছে। এমনকি রাতভর প্রত্যেক কর্মীকে ফোন করে প্রাণনাশের হুমকি দেয় অতীশ সরকার।

অভিযোগ অস্বীকার করে প্রাক্তন তৃণমূলের কাউন্সিলর অতীস সরকার বলেন, নিজেদের মধ্যে টাকা পয়সা নিয়ে গন্ডগোল বাধে। সেই সময় ওখান থেকে আমাকে ফোন করা হয়। আমি ওখানে গেলে আমার উপর চড়াও হয় বিজেপি কর্মীরা। আমি গায়ে হাত দিইনি উল্টে আমার গায়ে ওরা হাত দেয়।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here