বলিউড মাদক মামলা! অভিনেত্রীদের পর নাম জড়ালো অভিনেতাদেরও, এনসিবির সমন যেতে পারে হৃতিক, শাহিদের কাছে

আমাদের ভারত, ২৬ সেপ্টেম্বর: সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু তদন্ত এক অপ্রত্যাশিত মোড় নিয়ে ফেলেছে। এই মামলার তদন্তে উঠে এসেছে বলিউডের মাদক যোগের প্রসঙ্গ। এই বিষয়ে তদন্তে নেমে নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো সামনে উঠে আসতে থাকে একের পর এক প্রভাবশালী নাম। জড়িয়ে পড়ে বলিউডের সুপার স্টাররা। এবার সেই তালিকায় জুড়তে পারে হৃত্বিক ও শাহিদের নামও।

রিয়া চক্রবর্তীর গ্রেফতারের পরেই সামনে এসেছে দীপিকা পাড়ুকোন, সারা আলি খান, শ্রদ্ধা কাপুর, রাকুল প্রীত সিং এর মত প্রথম সারির অভিনেত্রীদের নাম। শনিবার এনসিবিত দপ্তরে তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডাকা হয়। এর আগে শুক্রবার জবানবন্দি দিয়েছেন রাকুল প্রীত সিং।

কিন্তু এসবের মধ্যেই প্রশ্ন উঠেছে শুধু কি নায়িকারা এই চক্রের সঙ্গে যুক্ত? বলিউডের পুরুষ মহলের কি কোন রকম যোগ নেই মাদক সেবনের সঙ্গে? পুরুষরাও এই বিষয়ে যুক্ত কিনা তা স্পষ্ট করে বলা সম্ভব না হলেও এনসিবির কড়া নজর থেকে কেউ যে রেহাই পাবে না তা স্পষ্ট হয়ে গেছে।

জানা গেছে এই জিজ্ঞাসাবাদে পরবর্তী দফায় এনসিবি দপ্তরের ডাক পড়তে পারে হৃত্বিক রোশনের। আগামী সপ্তাহেই হয়তো নারকটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর সমন পৌঁছে যেতে পারে তার হাতে।

এনসিবি সন্দেহ ২০১৭ সালের মুম্বাইয়ের লীলাবতী হাসপাতালে হেলথ ডিটেকশনের নামে ভর্তি হলেও এর পেছনে অন্য কারো কারণ ছিল হৃত্বিকের। হাসপাতাল থেকে অভিনেতা মেডিকেল রিপোর্ট বের করার চেষ্টা করছে এনসিবি তদন্তকারী দল। তালিকা এখানেই থামছে না। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডাকা হতে পারে শাহিদ কাপুর এবং অর্জুন রামপালকেও।

এদিকে সূত্রের খবর শনিবার নারকটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর জিজ্ঞাসাবাদে সামনে ড্রাগ চ্যাটের কথা স্বীকার করে নিয়েছেন অভিনেত্রী দীপিকা পাড়ুকোন,শ্রদ্ধা কাপুর। মাদক চ্যাট গ্রুপের কথোপকথনের ভিত্তিতে সুসান্ত সিং রাজপুতের বান্ধবী রিয়া চক্রবর্তী মাদক যোগসূত্রের প্রকাশ্যে এনেছিলেন। সেই গ্রুপে মাদক সংক্রান্ত চ্যাটের কথা স্বীকার করেছেন দীপিকা। একইভাবে সুসান্ত সিং রাজপুতের সঙ্গে পার্টিতে যাওয়ার কথা এবং ড্রাগ চ্যাটের অভিযোগ মেনে নিয়েছেন শ্রদ্ধা কাপুর। তবে দুই অভিনেত্রীই দাবি করেছেন তারা কখনোই মাদক সেবন করেন নি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here