রেলের ইঞ্জিনিয়ার পরিচয়ে ভুয়ো ডিম্যান্ড ড্রাফ্ট জমা করে দোকান মালিকের সঙ্গে প্রতারণা দুষ্কৃতিদের, বেশ কয়েকটি টিভি নিয়ে চম্পট

আমাদের ভারত, উত্তর দিনাজপুর, ১ ডিসেম্বর: রেলের ইঞ্জিনিয়ার বলে পরিচয় দিয়ে প্রায় লক্ষাধিক টাকার ভুয়ো ডিম্যান্ড ড্রাফ্ট জমা করে দুটি দোকান মালিকের থেকে বেশ কয়েকটি টিভি হাতিয়ে চম্পট দিল একদল প্রতারক। রবিবার এই খবর চাউড় হতেই তীব্র চাঞ্চল্য ছড়ায় রায়গঞ্জ শহরে।

স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, রায়গঞ্জ শহরের দক্ষিণ বীরনগর ও রাসবিহারী মার্কেট এলাকার বিশ্বজিৎ ফার্নিচার ও সাহা অ্যান্ড কোম্পানী নামে দুটি প্রতিষ্ঠিত আসবাবপত্র ও বৈদ্যুতিন সামগ্রীর দুটি দোকানে গ্রাহক বেশে আসেন একদল প্রতারক। তারা নিজেদের ডালখোলা রেল ষ্টেশনের রেলের আধিকারিক বলে পরিচয় দিয়ে প্রথমে কোটেশন দাবি করে। সেই মত দুই দোকানের ম্যানেজারই তাদের কোটেশন দিয়ে দেন। এরপর প্রথমে ব্যাঙ্কের চেক দেওয়ার কথা জানালে তা দুই দোকানই নিতে অস্বীকার করে। এদিকে তার দুদিন বাদে প্রথমে বিশ্বজিৎ ফার্নিচারে গিয়ে একটি রাষ্ট্রায়ত্ত্ব ব্যাঙ্কের ডিমান্ড ড্র্যাফট জমা করে। পাশাপাশি একই দিনে খানিক সময়ের ব্যবধানে রাসবিহারী মার্কেটের সাহা এ্যান্ড কোম্পানিতে গিয়ে একই ছকে ডিমান্ড ড্র্যাফট জমা দিয়ে দুই দোকান থেকেই প্রায় ২২টি টিভি নিয়ে চম্পট দেয় বলে অভিযোগ। শুধু তাইই নয়, দুই দোকানেই ভারতীয় রেলের রঙিন লোগো ছাপানো বিল জমা দেওয়া হয়। এদিন দুই দোকানের মালিকই শনিবার রাতে রায়গঞ্জ থানায় অজ্ঞাত পরিচয় দুই গ্রাহকের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। এদিকে পুলিশের সন্দেহ, বিহার অথবা ঝাড়খণ্ডের কোনও প্রতারণাচক্র ওই ঘটনার সঙ্গে জড়িত রয়েছে। পাশাপাশি অভিযুক্তরা বাঁকুড়ার কোনো একটি রাষ্ট্রায়ত্ত্ব ব্যাঙ্কের শাখা থেকে চুরি যাওয়া ব্ল্যাঙ্ক ডিম্যান্ড ড্রাফ্টের উপরে ব্যাঙ্কের কায়দায় বিভিন্ন তারিখ ও টাকার পরিমাণ লিখে প্রতারণা করেছে বলে অভিযোগ। দোকানের থেকে প্রায় সাড়ে তিন লক্ষাধিক টাকার টিভি নিয়ে গেছে দুষ্কৃতিরা। পাশাপাশি বিশ্বজিৎ ফার্নিচারের দাবি, পাঁচ লক্ষাধিক টাকার প্রায় দশটি টিভি হাতিয়ে নিয়েছে।

এদিকে ডালখোলা স্টেশন সুত্রে জানা গিয়েছে, এই ধরনের কোনো উদ্দ্যোগ রেলের তরফে নেওয়া হয়নি।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here