মুখ্যমন্ত্রী পুজোর উদ্বোধনকে পলিটিকাল ইভেন্টে পরিণত করেছেন, বরানগরে অভিযোগ সিপিএম নেতা সুজন চক্রবর্তীর

আমাদের ভারত, ব্যারাকপুর, ১৫ অক্টোবর: রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের ভার্চুয়াল দুর্গা পুজো উদ্বোধনকে কটাক্ষ করলেন সিপিএম নেতা সুজন চক্রবর্তী।হ তিনি বলেন, “রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী যেভাবে এক সঙ্গে ৫০/৬০ টা দুর্গা পুজো উদ্বোধন করছেন তা ভক্তি ভাবাবেগ কে ছাপিয়ে গেছে। পুজোর উদ্বোধন এখন পলিটিকাল ইভেন্টে পরিণত হয়েছে।

সুজনবাবু বলেন, এই করোনা পরিস্থিতিতে যেভাবে পুজোর উদ্বোধন চলছে, তাতে দেখা যাচ্ছে উনি যেখান থেকে বসে পুজোর উদ্বোধন করছেন সেখানে উনি ভার্চুয়াল বা একা থাকলেও যে প্যান্ডেলের উদ্বোধন হচ্ছে সেখানে তো কেউ ভার্চুয়াল নেই। সেখানে সবাই ম্যানুয়াল, সামাজিক দূরত্ব মেনে কিছুই হচ্ছে না। সব পুজোর উদ্বোধন উনি একাই করছেন, এটা নিজেকে বড় ভাবা ছাড়া আর কিছুই নয়।” উত্তর ২৪ পরগনার বরানগরে সিপিএম নেতা বাসুদেব ভট্টাচার্যের স্মরন সভায় এসে করোনা পরিস্থিতিতে দুর্গা পুজোর উদ্বোধন নিয়ে এভাবেই রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সমালোচনা করেন সুজন চক্রবর্তী।

রাজ্যে বিজেপির বাড়বাড়ন্ত প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে তিনি তৃণমূলকেই কাঠগড়ায় দাঁড় করান। বলেন, “জ্যোতি বসু বলতেন মমতার জীবনের সব থেকে বড় ভুল বিজেপিকে পশ্চিম বঙ্গের মাটিতে টেনে আনা। আজকে ওদের ১৮ জন এম পি কাদের দয়ায়? এখন অস্বীকার করলে কি ইতিহাসকে ভুলে যাওয়া যায়? দেশের নাগরিকদের ক্রমশ বিজেপি দারিদ্রতার দিকে ঠেলে দিচ্ছে। বিজেপি শাসনের অবসান হওয়া দরকার।”

বরানগরের কালিতলা মাঠে প্রাক্তন সিপিএম নেতা বাসুদেব ভট্টাচর্য্যের এই স্মরন সভায় উপস্থিত ছিলেন কংগ্রেস নেতা আব্দুল মান্নান, সিপিএম বিধায়ক মানস মুখোপাধ্যায়, তন্ময় ভট্টাচার্য, মহম্মদ সেলিম সহ কয়েকশ বাম সমর্থক।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here