“কান দেবেন না গুজবে , এপ্রিলের মত আগামী দুমাসে আরও ১০০০ টাকা দেবে মোদী সরকার”

আমাদের ভারত, ১০ এপ্রিল : ইতিমধ্যেই ২০ কোটি মহিলার অ্যাকাউন্টে টাকা পাঠিয়েছে কেন্দ্র সরকার। আর সেই টাকা তোলার কোনো নির্দিষ্ট সময় সীমা নেই। তাই গুজবে কোনভাবেই সাধারণ মানুষকে কান না দেবার আবেদন জানিয়েছে অর্থ মন্ত্রক। এছাড়াও তারা জানিয়েছেন আগামী দু মাসে আরো ৫০০ – ৫০০ করে হাজার টাকার জনধন যোজনার অ্যাকাউন্টে পাঠাবে মোদী সরকার।

জনধন প্রকল্পে সাধারণ মানুষের সবচেয়ে বেশি অ্যাকাউন্ট রয়েছে স্টেট ব্যাংকে। তাই ব্যাংকের তরফেও জানানো হয়েছে গুজবে কান না দিতে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গুজব রটেছিল ব্যাংক অ্যাকাউন্টে জমা হওয়া ওই টাকা যদি না তোলা হয় তাহলে তা সরকার ফেরত নিয়ে নেবে। অর্থ মন্ত্রকের তরফে এ বিষয়ে নিশ্চয়তা দিয়ে জানানো হয়েছে যে টাকা দেওয়া হয়েছে তা ফেরানোর কোন প্রশ্নই নেই। বরং আরো ১০০০ টাকা আগামী দু’মাসের দেওয়ার ব্যাপারে নিশ্চয়তা দেওয়া হয়েছে অর্থ মন্ত্রকের তরফে।

সারা দেশজুড়ে গুজব রটেছে যে ব্যাংক থেকে সরকারের পাঠানো টাকা যদি তুলে না নেওয়া হয়, তাহলে সেই টাকার সরকার ফেরত নেবে। এই গুজব রটতেই দলে দলে মানুষ ব্যাংকে একসঙ্গে টাকা তুলতে পৌঁছে গেছে। ফলে শিকেয় উঠেছে সামাজিক দূরত্ব।

বৃহস্পতিবার এ ব্যাপারে গুজবে কান দিতে বারণ করেছে অর্থমন্ত্রক। জানানো হয়েছে সরকার এপ্রিল মাসের জন্য যে টাকা পাঠিয়েছে তা উপভোক্তা যেকোনো সময় তুলতে পারেন। এর কোন সময় বাধা নেই। এপ্রিলের মত মে ও জুন মাসেও টাকা পাঠাবে সরকার।

লকডাউনের মধ্যে মহিলাদের সাহায্য করতে পাশে দাঁড়িয়েছে মোদী সরকার। তাই জনধন যোজনার অ্যাকাউন্ট হোল্ডার মহিলাদের অ্যাকাউন্টে ৫০০ টাকা পাঠিয়েছে সরকার। করোনা সংকট মোকাবেলায় ইতিমধ্যেই দেশের জন্য আর্থিক সাহায্যের প্রকল্প ঘোষণা করা হয়েছে সরকারের তরফে। এর মধ্যে সরকার জন ষধন যোজনা অ্যাকাউন্ট হোল্ডারদের অ্যাকাউন্টে প্রথম কিস্তির টাকা পাঠাতে শুরু করেছে। আগামী দু’মাসেও এভাবে টাকা দেবে কেন্দ্র।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here