নরেন্দ্রপুরে বহুতল আবাসন থেকে উদ্ধার দম্পতির দেহ

আমাদের ভারত, দক্ষিণ ২৪ পরগনা, ১৩ জানুয়ারি:
একটি বহুতল আবাসনের দরজা ভেঙ্গে ঘরের মধ্যে থেকে উদ্ধার হল এক বয়স্ক দম্পতির মৃতদেহ। মৃতদের নাম তপন ব্যানার্জি (৭২) ও শ্রীমতি বকুল ব্যানার্জি(৬৭)। ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগনার নরেন্দ্রপুর থানার অন্তর্গত রাজপুর সোনারপুর পুরসভার ৮ নম্বর ওয়ার্ডের প্রান্তিক আবাসনে। দুটি দেহ ফ্ল্যাটের আলাদা আলাদা ঘর থেকেই উদ্ধার হয়েছে বলে পুলিশ সূত্রে খবর।

স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবি, দুজনেই বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন। এদের একমাত্র ছেলে কয়েক বছর আগে জলে ডুবে মারা যায়। তারপর থেকে এরা কারোর সাথেই বিশেষ মেলামেশা করতেন না। মানসিক অবসাদে ভুগতেন বলে জানা গিয়েছে। সোমবার সকালবেলা পরিচারিকা কাজ করতে এসে বহুবার ডাকাডাকি করেও কোনও সাড়া শব্দ পাননি। তিনিই বিষয়টি স্থানীয়দের জানান। তারা পুলিশকে খবর দিলে নরেন্দ্রপুর থানার পুলিশ গিয়ে ফ্লাটের দরজা ভেঙ্গে দেহ দুটি উদ্ধার করে। মৃতদেহ দুটি ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে হাসপাতালে।

রবিবার রাতে কাজ করে চলে যায় পরিচারিকা। কিন্তু একইসাথে কি করে দুজনের মৃত্যু হল তা নিয়ে রহস্য দানা বেঁধেছে। তবে পুলিশের আনুমান, বার্ধক্য জনিত অসুখের কারণে স্ত্রীর মৃত্যু হলে সেই শোকে আত্মঘাতী হন স্বামী। তবে সঠিক কি ঘটনা ঘটেছে বা এর পিছনে কি কারণ রয়েছে সে বিষয়ে তদন্ত শুরু করেছে নরেন্দ্রপুর থানার পুলিশ।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here