বারুইপুর সংশোধনগারের সামনে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করল সিপিডিআরএস

আমাদের ভারত, দক্ষিণ ২৪ পরগণা, ২৯ সেপ্টেম্বর:
বারুইপুর সংশোধনগারে প্রায় ২৫ জন বন্দি ও পুলিশ কর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। জেলের ভিতর সাধারণ স্বাস্থ্যবিধি মানা হচ্ছে না। সময়মত জীবাণুমুক্তিকরণ করা হচ্ছে না বলে একাধিক অভিযোগ তুলে মঙ্গলবার দুপুরে মানবাধিকার সংগঠন সিপিডিআরএসের কর্মী সমর্থকরা বিক্ষোভ দেখালেন সংশোধনাগারের সামনে। প্রায় আধঘণ্টা বিক্ষোভ দেখান তারা। পাশাপাশি এই সংশোধনাগারের জেলারের কাছে স্মারকলিপিও জমা দেন মানবাধিকার সংগঠনের কর্মীরা।

যত দিন যাচ্ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে এই সংশোধনগারে। যখন সরকার এ বিষয়ে বাড়তি সতর্কতা নেওয়ার কথা বলছে, উন্মুক্ত সংশোধনাগারগুলোতে প্যারোল এক্সটেন্ড করেছে, তখন বারুইপুর জেলে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে না বলে অভিযোগ। সেই কারণে একগুচ্ছ দাবি নিয়ে মঙ্গলবার দুপুর সাড়ে বারোটা নাগাদ জেলের সামনে বিক্ষোভ ও ডেপুটেশন কর্মসূচি পালন করল এই মানবাধিকার সংগঠন। এদের দাবি, বারুইপুর জেলে করোনা আক্রান্ত সকল বন্দি ও পুলিশ কর্মীদের উন্নত চিকিৎসা পরিষেবা নিশ্চিত করতে হবে। সকল বন্দিদের প্যারোলে এবং প্যারোল এক্সটেন্ড করে মুক্তি দিতে হবে। জেলের অভ্যন্তরে করোনা আক্রান্ত পুলিশ কর্মীদের চিকিৎসা সুনিশ্চিত করতে হবে। জেল খালি করে সম্পূর্ণভাবে স্যানিটাইজ করতে হবে এবং, জেলের অভ্যন্তরে উপযুক্ত চিকিৎসা ও মানোন্নয়নের পরিকাঠামো দ্রুত উন্নত করতে হবে। এই দাবি তুলেই এদিন বিক্ষোভ ও ডেপুটেশন কর্মসূচি পালন করেন এই মানবাধিকার সংগঠনের কর্মীরা।

সংগঠনের সহ সম্পাদক রাজকুমার বসাক বলেন, “আমাদের মূল উদ্দেশ্য সকলের সুরক্ষা সুনিশ্চিত করা। সময়মত এই সংশোধনাগার জীবাণুমুক্ত করা। এ বিষয়ে সরকার গুরুত্ব দিক।”

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here