আলিমুদ্দিনে সূর্য অস্তের মুখ, আরও মুসলিমনির্ভর হতে চাইছে সিপিএম

9

চিন্ময় ভট্টাচার্য
আমাদের ভারত, ৮ ফেব্রুয়ারি: কংগ্রেসের সঙ্গে জোটও ভোটের হালে বিশেষ একটা পানি পাবে না-ধরেই এবার আরও বেশি মুসলিম নির্ভর হতে চায় সিপিএম। এজন্য দলের রাজ্য সম্পাদক পদে বদল আনার কথা ভাবছে দল। সূত্রের খবর, নতুন রাজ্য সম্পাদক হতে পারেন মহম্মদ সেলিম।

এমনিতেই সূর্যকান্ত মিশ্র খুব একটা ভালো করে কথা বলতে পারেন না। অন্যদিকে সেলিম অনেক বেশি ঝাঁঝাঁলো। শুধু তাই নয়, শিক্ষিত মুসলিম নেতা হিসেবে সেলিম দারুণ প্রতিষ্ঠিত। পাশাপাশি, এক হিন্দু মহিলাকে বিয়ে করে মুসলিম ধর্মে ধমান্তরিত করাতে পারায় অত্যন্ত গোঁড়া মুসলিম সমাজেও মহম্মদ সেলিমের আলাদা কদর রয়েছে। এর সঙ্গে বিভিন্ন সময় দাঙ্গাবাজ মুসলিম যুবকদের প্রশ্রয় দেওয়ার অভিযোগও সেলিমের বিরুদ্ধে উঠেছে। উপরি হিসেবে, তিনি দীর্ঘদিন সাংসদ ছিলেন। সর্বভারতীয়স্তরে রীতিমতো পরিচিত মুখ। এসব কথা মাথায় রেখেই, সেলিমকে রাজ্য সম্পাদক করতে চাইছে সিপিএম।

সূত্রের খবর, সিপিএম নেতৃত্বের ধারণা, সেলিম দলের রাজ্য সম্পাদক হলে সিএএ, এনপিআর, এনআরসির মতো বিভিন্ন ক্ষেত্রে তৃণমূলের প্রতি মুসলিমদের সমর্থন কমবে। কারণ, একজন মুসলিম নেতার নেতৃত্বাধীন দলের চেয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুসলিম-প্রীতিকে বেশি গুরুত্ব দেবে না মুসলিম সমাজ। এই অঙ্কটা সিপিএম নেতৃত্ব ইতিমধ্যেই করে ফেলেছেন। তবে, সরালেও সূর্যকান্ত মিশ্রকে বিধানসভা ভোট পর্যন্ত রাজ্য সম্পাদক পদেই রাখতে চান সিপিএম নেতৃত্ব। নিজের খাসতালুক নারায়ণগড়ে বিধানসভা নির্বাচনে পরাস্ত সূর্যকান্ত মিশ্রের জামাই ‘বিজেপির লোক’। এটাও সূর্যকান্তের বিপক্ষে গিয়েছে।

পাশাপাশি, দলের গোপন হিসেব নাকি ইতিমধ্যে সিপিএম নেতাদের কাছে স্পষ্ট করে দিয়েছে, পুরনির্বাচন তো বটেই, বিধানসভা ভোটেও কংগ্রেস-বাম জোটের পরাজয় অবশ্যম্ভাবী। আর, সেই পরাজয়ের অজুহাতে সূর্যকান্ত মিশ্রকে সরাতে চান সিপিএম নেতৃত্ব। সূত্রের খবর, সেই কারণেই বিধানসভা ভোট পর্যন্ত সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক পদে রেখে দেওয়া হবে নারায়ণগড়ের প্রাক্তন এই বিধায়ককে।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here