লোক দেখানো নয়, নিয়ম মেনে লকডাউন পালন করা প্রয়োজন, রাজ্যকে আক্রমণ দিলীপ ঘোষের

আমাদের ভারত, মুর্শিদাবাদ, ৯ আগস্ট: রবিবার মুর্শিদাবাদ জেলাতে রেকর্ড করোনা আক্রান্তের হদিশ মিলল। এদিন মুর্শিদাবাদ জেলাতে ৭৪ জনের দেহে কোভিড ১৯ এর হদিস মিলেছে। যার মধ্যে বেশিরভাগই স্বাস্থ্য কর্মী বলে জানা গিয়েছে। এর জন্য উদ্বিগ্ন প্রকাশ করেছেন জেলা স্বাস্থ্য দফতর।

এই প্রসঙ্গে রাজ্য সরকারকে কটাক্ষ করেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। রবিবার বহরমপুরে পঞ্চাননতলায় বিজেপির দলীয় কার্যালয়ে উপস্থিত হয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে রাজ্যে করোনা পরিস্থিতি সহ বাণিজ্য সন্মেলন সহ একাধিক ইস্যুতে রাজ্য সরকারকে কটাক্ষ করেন তিনি।

দিলীপ ঘোষ করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বৃদ্ধি নিয়ে বলেন, কেন্দ্রীয় সরকারের নির্দেশে লকডাউন প্রথম থেকে শুরু হলেও লকডাউন প্রথম থেকেই মানেনি রাজ্য সরকার। আজ নামেই লকডাউন করা হচ্ছে লোক দেখানো। এখন প্রতিদিন মুর্শিদাবাদ জেলা সহ রাজ্যে সংক্রমণ বৃদ্ধি হচ্ছে। রাজ্য সরকারের উচিত লকডাউনকে ভালো করে মান্যতা দিয়ে পালন করা। পাশাপাশি, বাণিজ্য সন্মেলন নিয়ে রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়ের সুরে দিলীপ ঘোষ বলেন, রাজ্য সরকারের কাছে সারা পশ্চিমবঙ্গের মানুষের প্রশ্ন বেঙ্গল সাবমিটের নামে কোটি কোটি টাকা লুঠ করে, কতটাকা ইনভেস্ট হয়। রাজ্যে পুজোর উদ্বোধন হলেও কোনও কল কারখানার উদ্বোধন করেননি মুখ্যমন্ত্রী। কত টাকা খরচ হয়েছে তা সাধারণ মানুষের কাছে শ্বেতপত্র আকারে প্রকাশ করুক রাজ্য সরকার। পাশাপাশি বেশ কিছু দিন ধরেই ফারাক্কাতে বেশ কিছু এলাকায় গঙ্গা ভাঙ্গন চলছে। সেই প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ভাঙ্গন আটকানোর জন্য কোনও পরিকল্পনা নেই রাজ্য সরকারের। ভাঙ্গনের নামে প্রত্যেক বছর কয়েক কোটি টাকা লুঠ করে রাজ্য সরকার। প্রতিবছর ভাঙ্গনের কবলে বহু মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হয় এবং কেন্দ্রীয় সরকারের সঙ্গে কথা বলে রাজ্য সরকারের ভাবা উচিত বলে মন্তব্য করেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here