সিএএর সমর্থনে মতুয়া ও নমশূদ্রদের বিশাল মিছিল বুনিয়াদপুরে, এক বছরেই তৃণমূলকে বিসর্জন দেওয়ার নিদান দিলীপ ঘোষের

25

আমাদের ভারত, বালুরঘাট, ২৬ জানুয়ারি: সিএএ’র সমর্থনে বুনিয়াদপুরে মতুয়া ও নমশূদ্রদের নিয়ে বিশাল মিছিল বিজেপির। আগামী একবছরে বিধানসভা ভোটে তৃণমূলকে বিসর্জন দেওয়ার ডাক বিজেপি জেলা সভাপতি দিলীপ ঘোষের। পুরসভা নির্বাচনকে পাখির চোখ করে রবিবার দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার বংশীহারী ব্লকের সরাইহাট থেকে একটি র‍্যালি করে বুনিয়াদপুর শহর পরিক্রমা করেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। মহকুমা শাসকের অফিসের সামনে দিয়ে মিছিল বাসস্ট্যান্ডে শেষ হয়। হুটখোলা গাড়িতে করেই মতুয়াদের নিয়ে মিছিল করেন বিজেপির ওই রাজ্য নেতা। যেখানে তিনি ছাড়াও হাজির ছিলেন বালুরঘাটের সাংসদ সুকান্ত মজুমদার, জেলা সভাপতি বিনয় বর্মন সহ একঝাঁক জেলা নেতৃত্ব। মিছিল শেষে এদিন বাসস্ট্যান্ডে পথ সভা করে সিএএ’র সমর্থনে ভাষণ দেন দিলীপ ঘোষ। বাংলাদেশ থেকে আগত শরনার্থীদের করুণ অবস্থার কথা তুলে ধরে সিএএ’ নিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি।

পথসভা থেকে রাজ্যের শাসক দল তৃণমূলকে তীব্র আক্রমণ করেছেন দিলীপ ঘোষ। তিনি বলেন, বামফ্রন্ট ও কংগ্রেস থেকে রিজেক্ট মাল দিয়ে তৈরি হিয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। ফলে তাঁদের কাছে আর কিছু আশা করা যায় না। ভালো মন্দ বিচার করার ক্ষমতা এদের নেই, সবতেই বিরোধিতা করাই এদের স্বভাব। তৃণমূল প্রাণ দিলেও সিএএ আটকাতে পারবেন না বলেও এদিন জানিয়েছেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি। একই সাথে কাটমানি ইস্যুতেও আক্রমণ করেন দিলীপ ঘোষ। তিনি বলেন, রাজ্য জুড়ে ১০০টিরও বেশি পুরসভা মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়েছে। কিন্তু সেখানে হারের ভয়ে এখনো ভোট করতে চাইছে না রাজ্য সরকার। সাংসদ সুকান্ত মজুমদারও এদিন রাজ্য সরকারকে আক্রমণ করেন।

দিলীপ ঘোষ জানিয়েছেন, বাংলাদেশ থেকে আগত
শরনার্থীদের স্বার্থে সিএএ আইন। যার জন্য প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তিনি। আগামী এক বছরেই তৃণমূলকে বিসর্জন দেওয়া হবে বলেও মন্তব্য করেন দিলীপ ঘোষ।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here