সরকারি সম্পত্তি নষ্ট করলে গুলি করে মারার বক্তব্যে অবিচল বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ

নীল বনিক, আমাদের ভারত, কলকাতা, ১৫ জানুয়ারি:
নিজের বক্তব্যের সমর্থনে ফের সওয়াল করলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। বুধবার দলের রাজ্য সদর দফতরে তিনি বলেন, আমি যা বলেছি তা ভেবেচিন্তে বলেছি। আমার বক্তব্য থেকে আমি একপাও পিছু হঠছি না। তিনি বলেন, সরকারি সম্পত্তি যারা নষ্ট করবে তাদের বিরুদ্ধে পুলিশকে কঠোর ব্যাবস্থা নিতে বলা যাবে না? পুলিশের গাড়ি ভাঙ্গচুর করবে। জাতীয় সম্পত্তি নষ্ট করবে। অথচ তাদের বিরুদ্ধে ব্যাবস্থা নিতে বললে একশ্রেণির মানুষ কথা বলবে।

প্রসঙ্গত, রানাঘাটে দিলীপ ঘোষ জানিয়েছিলেন রাষ্ট্রের সম্পত্তি নষ্টকারীদের গুলি করে মারা উচিত। উত্তরপ্রদেশের সরকার তাই করেছে। মমতার সরকারের দম নেই, তাই করতে পারেনি। বিজেপির রাজ্য সভাপতির এমন মন্তব্যের পর রাজনৈতিক মহলে ঝড় ওঠে। রাজ্যের শাসক দল বাম, কংগ্রেস সবাই একযোগে দিলীপ ঘোষের সমালোচনা করে। এমনকি দিলীপ ঘোষের এমন মন্তব্যের জন্য বাম, কংগ্রেস এফআইআর করেছে। বিরোধীদের সমালোচনায় যে তিনি আমল দিচ্ছেন না সেকথা বুধবার সাংবাদিক বৈঠক করে বুঝিয়ে দেন। উল্টে ভয়ের রাজনীতি করার জন্য তৃণমূলকে কটাক্ষ করেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি। তিনি বলেন, রাজ্যের উপাচার্যরা ভয়ে আছেন। তাই ধর্মতলায় তৃণমূলের সমাবেশে গিয়েছিলেন। আগে দেখেছি রাজ্যের আইপিএসরা শাসক দলের ধর্নায় গেছেন। এবার দেখলাম উপাচার্যরাও তৃণমূলের সমাবেশে। তবে কোনও উপাচার্য ইচ্ছায় আসেননি বলে দাবি করেন দিলীপ ঘোষ।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here