আইন মোতাবেক কাশ্মীরের নেতাদের আটক করা হয়েছে, আপত্তি থাকলে আদালতে চ্যালেঞ্জ করুন: দোভাল

আইন মোতাবেক কাশ্মীরের নেতাদের আটক করা হয়েছে, আপত্তি থাকলে আদালতে চ্যালেঞ্জ করুন: দোভাল

আমাদের ভারত,৭ সেপ্টেম্বর:আইন মেনেই কাশ্মীরের নেতাদের আটক করা হয়েছে। এ বিষয়ে কোনো রকম আপত্তি থাকে তারা আদালতে চ্যালেঞ্জ করতে পারেন। কাশ্মীরের রাজনৈতিক নেতা-কর্মীদের আটকে নিয়ে ওঠা বিতর্কের জবাব দিলেন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত দোভাল।

তাঁর কথায়, জম্মু-কাশ্মীরের কোন রাজনৈতিক নেতার বিরুদ্ধে কোন ফৌজদারি অভিযোগ আনা হয়নি। রাজ্যে গণতান্ত্রিক পরিবেশ না ফেরা পর্যন্ত তাদেরকে আটক করে রাখা হবে। নিরাপত্তার কথা চিন্তা করেই তাদের আটক করা হয়েছে।তিনি বলেন এইসব নেতৃত্ব যদি কোনরকম সভা বা জমায়েত করেন তাহলে তার সুযোগ নিতে পারে সন্ত্রাসবাদীরা।

দোভাল কাশ্মীরের বর্তমান পরিস্থিতি সম্পর্কে বলতে গিয়ে জানান, ওই রাজ্যের ৯২.৫ শতাংশ জায়গায় কোন বিধি-নিষেধ আরোপ নেই। মোট ১৯৯ টি থানার মধ্যে মাত্র ১০ থানায় এখনো বিধিনিষেধ রয়েছে। সবত্রই ল্যান্ডলাইন পরিষেবা সচল করা হয়েছে।

অন্যদিকে উপত্যকায় ভারতীয় সেনার অত্যাচার চলছে বলে যে অভিযোগ তোলা হয়েছে তা সম্পূর্ণ ভুল বলেই তিনি জানিয়েছেন। দোভাল জানান একমাত্র জঙ্গি মোকাবিলা করতে সেনা মোতায়েন করা আছে।

ওই রাজ্যে আইন-শৃংখলা পুনরুদ্ধারে কাজ করছে কাশ্মীরের পুলিশ ও আধা সেনা। জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা অবলুপ্তির প্রসঙ্গে তিনি বলেন, উপত্যাকার বেশিরভাগ মানুষই এই ধারা অবলুপ্তির পক্ষে। তা নিয়ে সন্দেহের কোন অবকাশ নেই। উপত্যাকার মানুষ এখন কর্মসংস্থান এবং আর্থিক উন্নতির স্বপ্ন দেখছেন। কিছু দুর্বৃত্তরাই এই ৩৭০ ধারা অবলুপ্তির বিরোধিতা করছে।

তিনি বলেন জঙ্গিদের হাত থেকে কাশ্মীরিদের বাঁচানোর চেষ্টা করছি বলেই বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। পাকিস্তান কাশ্মীরের লাগাতার অশান্তি বাধা সৃষ্টি করছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 × two =

amaderbharat.com

Welcome To Amaderbharat.com, Get Latest Updated News. Please click I accept.