গোপালনগরে ছেলের লাঠির আঘাতে বাবার মৃত্যু, গ্রেফতার ছেলে

সুশান্ত ঘোষ, বনগাঁ, ২৪ জুন: লাঠির আঘাতে বাবার মৃত্যু। অভিযুক্ত ছেলেকে গ্রেফতার করল পুলিশ। বুধবার সকালে ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগণার গোপালনগর থানার আকাইপুর পঞ্চায়েতের কামদেবপুর এলাকায়। পুলিশ জানিয়েছে মৃতের নাম সুশীল মজুমদার। অভিযুক্ত ছেলে সুবোধ মজুমদারকে আজ বনগাঁ আদালতে তোলা হলে বিচারক পাঁচ দিনের পুলিশি হেফাজতের নির্দেশ দেন।

স্থানীয় ও পরিবার সূত্রের খবর, মঙ্গলবার রথের দিন বোউমাকে কেন বাপের বাড়ি পাঠানো হয়েছে, এই নিয়ে ছেলের সঙ্গে বাবার বিবাদ হয়। আজ সকালে ঘুম থেকে উঠে সুশীলবাবু বৌমাকে বাড়িতে দেখতে না পেয়ে ছেলে সুবোধকে ঘুম থেকে ডেকে তোলেন। ছেলের কাছে জানতে চান কেন মঙ্গলবার বৌমাকে তাঁর বাপের বাড়ি পাঠাতে হল? ছেলে কোনও উত্তর না দিয়ে বাবার সামনেই দাঁড়িয়ে ছিল। সুশীলবাবু রাগে ছেলেকে প্রথমে বেশ কয়েকটা চড় মারতে মারতে উঠানে নিয়ে যান। তাতেও রাগ মেটেনি বাবার। পাশে পড়ে থাকা একটি কাঠের চলা তুলে ছেলের মাথায় আঘাত করে। ছেলে সুবোধের মাথা ফেটে রক্তাক্ত হয়ে মাঠিতে লুটিয়ে পড়ে। তাঁর চোখে মুখে রক্তে ঢেকে যায়।

ওই অবস্থা দেখেও সুশীলবাবু ফের ওই চলা দিয়ে মারতে গেলে, ছেলে সুবোধ অন্য একটি বাঁশের চলা হাতে নিয়ে ঘোরাতে যায়। সেই লাঠিত আঘাত লাগে সুশীলবাবুর মাথার পেছনে। ঘটনা স্থলেই সুশীলবাবু মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। প্রতিবেশী ও পরিবারের লোকজন তড়িঘড়ি বাবা আর ছেলেকে বনগাঁ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা জানায় বাবার মৃত্যু হয়েছে। ভাইয়ের বিরুদ্ধে বাবাকে অনিচ্ছাকৃত খুনের অভিযোগ দায়ের করেন দাদা চিরঞ্জিত মজুমদার।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here