চুলের সমস্যায় হোমিওপ্যাথি

চুলের সমস্যায় হোমিওপ্যাথি

ডাঃপ্রশান্ত কুমার ঝরিয়াৎ

আমাদের ভারত, ২২ সেপ্টেম্বর: মাথার চুল মানুষকে আরও ব্যক্তিত্ব ময় ও আকর্ষণীয় করে তোলে। পুরুষ নারী নির্বিশেষে সকলেই চায় মাথায় একঝাঁক ঘন কালো কেশ।কবিতার ভাষায় বলতে গেলে “কেশের আমি, কেশের তুমি/কেশ দিয়ে যায় চেনা।” এই কেশ রাশিকে ঠিক রাখার জন্য আমাদের কী আপ্রাণ প্রচেষ্টা। কখনও নামীদামি ব্র্যান্ডের শ্যাম্পু বা হেয়ার ওয়েল আবার কখনও বা চুল পড়া বন্ধ করার জন্য নানা ধরনের টোটকা। কিন্তু এত কিছুর পরেও যদি চুলের সমস্যা না মেটে যদি চুল ঝরতেই থাকে আর পেকে যেতে থাকে তবে দুঃশ্চিন্তার আর অন্ত থাকে না, তখন বাধ্য হয়ে আমরা ছুটি ডাক্তারবাবুদের চেম্বারে।

চুল পড়ার অনেক কারন আছে, তার মধ্যে অন্যতম হল অতিরিক্ত মানসিক উৎকন্ঠা বা অস্থিরতা। এছাড়াও কিছু হরমোনের সমস্যার কারনে বিশেষত থাইরয়েডের কারনে চুল উঠতে পারে। অনেক সময় বিজ্ঞাপনের ফাঁদে পড়ে এটা ওটা লাগিয়ে আমরা নিজেদের বিপদ নিজেরাই ডেকে নিয়ে আসি। মাথা অপরিষ্কার থাকলে, মাথায় খুসকি হলে চুল পড়া বাড়তে পারে। অনেক সময় বংশগত কারণেও অল্প বয়সে চুল পড়ে যেতে পারে।

চুলের এইসব সমস্যায় বেশ কিছু হোমিওপ্যাথি ওষুধ আছে যেগুলো অত্যন্ত কার্যকরী। আসুন আমরা দেখি কোন কোন হোমিওপ্যাথি ওষুধ এই অবস্থায় আমাদের উপকার দিতে পারে।

মাথায় যদি প্রচুর খুসকি হয়, অনেক শ্যাম্পু লাগিয়েছেন কিন্তু কিছুতেই কিছু হচ্ছে না, এমতাবস্থায় ব্যাসিলিনাম-২০০ ঔষধটির সাতদিন ছাড়া এক মাত্রার কয়েকটি ডোজ আপনাকে এই সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে। শীতকাতুরে রোগীর যদি মাথার চুল সহ ভ্রূ এবং গোঁফের চুল ও উঠে যেতে থাকে তবে সে ক্ষেত্রে সেলেনিয়াম ঔষধটি আপনাকে নিরাশ করবে না।

রোগী গরম সহ্য করতে পারে না তৎসহ জায়গায় জায়গায় মাথার চুল উঠে গিয়ে টাঁক মতন পড়ে যাচ্ছে, সেক্ষেত্রে এসিড ফ্লোরঔষধটি স্মরণ করতে হবে।

দীর্ঘ রোগে ভুগে মাথার চুল উঠে গিয়ে পাতলা হয়ে গেলে এবং খুব দুর্বল ভাব থাকলে এসিড ফস খুবই কার্যকরী।

মাথার তালু ঘায়ে ভর্তি, তার সাথে অসম্ভব চুলকানি, মেজেরিয়াম ঔষধটি প্রয়োগ করে দেখুন, মনে মনে আপনি নিঃশ্চয়ই আমাকে ধন্যবাদ দেবেন।
গর্ভবতী মায়েদের অনেক সময় মুঠো মুঠো চুল উঠতে থাকে, এক্ষেত্রে লক্ষ্মণভেদে নেট্রামমিউর বা সেপিয়া প্রয়োগ করলে ভালো ফল পাওয়া যায়।

মনে রাখবেন হোমিওপ্যাথিতে রুগীর লক্ষ্মণ ভেদে ঔষধ নির্বাচন করা হয়, সেক্ষেত্রেএকজন হোমিওপ্যাথের সঙ্গে আলোচনা অবশ্যই করে নেবেন, কারন ধাতু গত লক্ষ্মণ বিচার করে চুলেরসমস্যায় লাইকপোডিয়াম,
থুজা, সিফিলিনাম ইত্যাদি ওষুধগুলি অত্যন্ত ভালো কাজ করে ।
পরিশেষে বলি ম্যাজিক রেমেডি বলে কিছু হয়না।আজ ওষুধ খেলে কালই ফল পাব এরকম আশা না করে একজন অভিজ্ঞ হোমিওপ্যাথি ডাক্তারবাবুর কাছে ধৈর্য ধরে ওষুধ খান, ফল অবশ্যই পাবেন ।

Related Articles

2 Comments

  • Soma Kundu , September 25, 2019 @ 3:22 PM

    Lekha ta khubb valo hoeche… Amaro khubb chul uthche kon osudh ta khaboo???

  • Dr.prasanta kumar jhariat , September 28, 2019 @ 1:37 AM

    You may take lycopodium-200/3doses at every 2 days interval.
    For better clarification consult with your local homeopathic physician .

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

10 − 6 =

amaderbharat.com

Welcome To Amaderbharat.com, Get Latest Updated News. Please click I accept.