সপ্তাহে চারদিন রেশন দোকান না খুললে, আমরাই ব্যবস্থা নেব: অনুব্রত

আমাদের ভারত, রামপুরহাট, ১০ জানুয়ারি: “এবার থেকে সপ্তাহে চারদিন রেশন দোকান খোলা রাখতে হবে। কোনও রেশন দোকান মালিক নির্দেশ পালন না করলে তার দোকান বন্ধ করে দেওয়া হবে। খবর দিলে আমরাই ব্যবস্থা নেব।” শুক্রবার তারাপীঠের বেসিক মোড়ে সিএএ এবং এনআরসি বিরোধী জনসভায় এমনই নির্দেশ দেন তৃণমূলের বীরভূম জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল।

আজ বিকেলে ওই সভার আয়োজন করে রামপুরহাট ২ নম্বর ব্লক তৃণমূল কংগ্রেস। অনুব্রত মণ্ডল বক্তব্য রাখতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বাপবাপান্ত করেন অনুব্রত। তিনি বলেন, “ভারতবর্ষ প্রধানমন্ত্রীর জমিদারী নাকি। উনার দাদু কি উনাকে জমিদারী দিয়ে গিয়েছেন! যে উনি যা চাইবেন তাই করবেন। আমরা বেঁচে থাকতে এরাজ্যে এন আর সি হবে না”।

এরপরেই তিনি বলেন, “আমার কাছে বেশ কিছু অভিযোগ এসেছে রেশন ডিলারদের বিরুদ্ধে। তারা সপ্তাহে দুদিন দোকান খোলা রাখে। সেই সময়ের মধ্যে কেউ আসতে না পারলে বা তার টাকা না থাকলে পরের সপ্তাহে সেই সামগ্রি দেওয়া হয় না। এবার থেকে এমনটা চলবে না। এবার থেকে সপ্তাহে চার দিন দোকান খোলা রাখতে হবে। টাকার অভাবে কেউ এক সপ্তাহে চাল, গম সহ রেশন সামগ্রী না নিলে পরের সপ্তাহে এমনকি মাসের শেষ সপ্তাহে সেই সমস্ত জিনিস দিতে হবে। প্রতি সপ্তাহে কি কি সামগ্রী দেওয়া হবে তার তালিকা পঞ্চায়েতে এবং দোকানের বাইরে ঝুলিয়ে রাখতে হবে।” এরপরেই জেলা পরিষদের মেন্টর রানা সিংহকে নির্দেশ দেন বিষয়টি নিয়ে জেলা শাসকের সঙ্গে আলোচনা করে সমস্ত পঞ্চায়েত প্রধান এবং রেশন ডিলারকে চিঠি করতে।

সভায় উপস্থিত ছিলেন কৃষিমন্ত্রী আশিস বন্দ্যোপাধ্যায়, জেলা পরিষদের সভাধিপতি বিকাশ রায় চৌধুরী, বোলপুরের সাংসদ অসিত মাল, দলের জেলা সহ সভাপতি অভিজিৎ সিংহ, সৈয়দ সিরাজ জিম্মি, ব্লক সভাপতি সুকুমার মুখোপাধ্যায়। সভায় দেরিতে আসায় এদিন আশিসবাবু বক্তব্য রাখার কোনও সুযোগ পাননি।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here