ভার্চুয়াল সভা হলে আকাশ ভেঙে পড়ত না, রাজ্যপালের পক্ষে সওয়াল অধীরের

রাজেন রায়, কলকাতা, ১৬ জুলাই: ‘উপাচার্যদের সঙ্গে রাজ্যপালের ভার্চুয়াল সভা হলে আকাশ ভেঙে পড়ত না।’ তোপ দাগলেন লোকসভার বিরোধী দলনেতা কংগ্রেস সাংসদ অধীর রঞ্জন চৌধুরী। বৃহস্পতিবার তিনি সোশ্যাল মিডিয়ায় রাজ্যের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন।
বুধবার কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষার মূল্যায়ন নিয়ে উপাচার্যদের নিয়ে ভার্চুয়াল বৈঠকের আহ্বান জানিয়েছিলেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর। কিন্তু সেখানে একজন উপাচার্য বাদে কেউই হাজির ছিলেন না। আর তাতেই ক্ষোভে প্রকাশ করে সোশ্যাল মিডিয়া ও সংবাদমাধ্যমে নিজের ক্ষোভ উগরে দেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর। সে প্রসঙ্গেই এদিন কড়া প্রতিক্রিয়া জানালেন অধীররঞ্জন চৌধুরী।

তিনি বলেন, ‘আকাশ ভেঙে পড়ার মত কিছু হত না রাজ্যপাল এবং উপাচার্যদের মধ্যে বৈঠক হলে। তবে দুই সত্তার মধ্যে এই বিরোধ রাজ্যের শিক্ষার জন্য ভালো সংকেত নয়। এর ফলে ছাত্রছাত্রীদের কাছেই বা কী বার্তা যাচ্ছে।’

অন্যদিকে স্যানিটাইজার ও মাস্কের ওপর কেন্দ্রীয় সরকারের ১৮ শতাংশ জিএসটি বসানোর সিদ্ধান্তে কড়া প্রতিক্রিয়া জানালেন অধীর চৌধুরী। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘একদিকে মোদি সরকার সাধারণ মানুষকে আত্মনির্ভর হওয়ার কথা বলছেন। অন্যদিকে মানুষের এই মুহূর্তের সবচেয়ে বেশি চাহিদার জিনিস স্যানিটাইজার ও মাস্কের ওপর জিএসটি আরোপ করছে। যেখানে গত মার্চ মাসে স্যানিটাইজার ও মাস্ককে অত্যাবশ্যকীয় পণ্যে অন্তর্গত করা হয়েছিল। তার পরেও কিভাবে দাম বাড়ানো হচ্ছে। উল্টে বর্তমান কোভিড পরিস্থিতিতে মাস্ক এবং স্যানিটাইজার জীবনের অঙ্গ হয়ে দাঁড়িয়েছে। সেখানে দাম না কমিয়ে উল্টে দাম বাড়ানো হচ্ছে এ কেমন অর্থনৈতিক আগ্রাসন? তবে কি কেন্দ্র সুযোগের সদ্ব্যবহার করছে। কেন্দ্রের আয় কমেছে বলে একাধিক রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা কে বেসরকারিকরণ করা হচ্ছে। এটা কখনোই আত্মনির্ভর হওয়ার উদাহরণ হতে পারে না।’

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here