শহিদদের শ্রদ্ধা জানিয়ে কুইজ কেন্দ্রের ইন হাউস ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্প

আমাদের ভারত, মেদিনীপুর, ১৮ জুন: মেদিনীপুর কুইজ কেন্দ্র সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার সোসাইটির আহ্বানে সাড়া দিয়ে তমলুক জেলা হাসপাতালে ইন হাউস ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্পে ১৭ জন রক্তদান করলেন। তমলুক ব্লাড ব্যাঙ্কে মেদিনীপুর কুইজ কেন্দ্রের তৃতীয় ইন-হাউস ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্পের মাধ্যমে সীমান্ত সংঘর্ষে নিহত বীর শহিদদের শ্রদ্ধা জানাতে এই শিবিরে ১৭ জন রক্ত দান করেন।

“জীবনের জন্য রক্তদান” এই স্লোগানকে সামনে রেখে মেদিনীপুর কুইজ কেন্দ্র সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার সোসাইটি লকডাউনের সঙ্কটকালে ব্লাড ব্যাঙ্কগুলোতে সামর্থ্য মতো রক্তের যোগান দেবার সংকল্প  নিয়ে ইন হাউস ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্প শুরু করে। ‘ইন হাউস ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্প’ হল সংঠনগত ভাবে উদ্যোগ নিয়ে সরাসরি ব্লাড ব্যাঙ্কে গিয়ে রক্তদান করা। সংস্থার পক্ষ থেকে প্রথমবার ২৮ মে মেদিনীপুর মেডিকেল কলেজের ব্লাড ব্যাঙ্কে ইন হাউস ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্পের সূচনা করা হয়। ওই দিন রক্তদান করেন ১ জন মহিলা সহ মোট ১২ জন। এরপর দ্বিতীয় পর্বের ইনহাউস ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্প হয়েছিল সংস্থার হলদিয়া শাখার উদ্যোগে হলদিয়া ব্লাড ব্যাঙ্কে। সেদিন ১১ জন রক্তদাতা রক্ত দান করেন। এরপর সংস্থার উদ্যোগে বুধবার তমলুক ব্লাড ব্যাঙ্কে ইন হাউস ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্পে ১৭ জন রক্ত দান করেন। ১৭জনের মধ্যে ৩ ইউনিট রক্ত তমলুক হাসপাতালের ৩ জন রোগীর পরিবারকে সরাসরি তুলে দেওয়া হয়।লকডাউন সময়কালে সংস্থার পরিকল্পনা অনুযায়ী ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্পের আয়োজন না করে এইভাবে ইন হাউস ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্পের মাধ্যমে সদস্য ও শুভানুধ্যায়ীরা এভাবে রক্ত সরাসরি দিয়ে চলেছেন।

সংস্থার অন্যতম কর্ণধার তথা প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক “স্বপ্নের  ফেরিওয়ালা” মৌসম মজুমদার বলেন, “সাধারণত যে ধরনের রক্তদান শিবির হয়ে থাকে ইনহাউস ব্লাড ডোনেশন ক্যাম্প একটু আলাদা প্রকৃতির। সরাসরি ব্লাড ব্যাঙ্কে গিয়ে রক্ত দান করা। 

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here