“অন্যের ক্ষেত্রে পুলিশ অন্ধ ধৃতরাষ্ট্র, আর মমতা ব্যানার্জির নামে পান থেকে চুন খসলেই অতি সক্রিয়তা অত্যন্ত দৃষ্টিকটু”

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নামে সোস্যাল মিডিয়ায় কুরুচিকর পোস্ট করায় সম্প্রতি পুরুলিয়ার এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এই ঘটনায় তীব্র প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন হিন্দু নেতা তপন ঘোষ।

তপন কুমার ঘোষ (কট্টরপন্থী হিন্দু নেতা)
আমাদের ভারত, ৬ মার্চ: পশ্চিমবঙ্গ পুলিশের এই কাজের আমি তীব্র নিন্দা করছি। পশ্চিমবঙ্গ পুলিশ, কলকাতা সহ বিভিন্ন কমিশনারেট পুলিশের অফিসারদের আবেদন করছি, আপনারা আপনাদের পদের ন্যূনতম মর্যাদা রাখুন এবং এই নগ্ন পদলেহন করা বন্ধ করুন। আমাদের মুখ্যমন্ত্রীকে অমর্যাদা করে যদি কেউ সোস্যাল মিডিয়ায় কোনও পোস্ট দিয়ে থাকে, তাহলে তা যতটা নিন্দনীয় ও অবাঞ্ছিত, ঠিক ততটাই তো অবাঞ্ছিত অন্য কাউকে অমর্যাদা করে পোস্ট দেওয়াটা। এই রাজ্যে অনেকে যখন দেশের সম্মানিত জনপ্রিয় নির্বাচিত প্রধানমন্ত্রী সম্বন্ধে অত্যন্ত কুরুচিকর, অমর্যাদাকর, এমনকি ক্রিমিনাল হুমকি দেওয়া পোস্ট করে, তখন এই রাজ্যে পুলিশ অন্ধ ধৃতরাষ্ট্র হয়ে বসে থাকে কেন? আর মমতা ব্যানার্জীর নামে পান থেকে চুন খসলেই পুলিশের এই অতি সক্রিয়তা অত্যন্ত দৃষ্টিকটু।

আই পি এস অফিসাররা, আপনাদের কাঁধে লাগানো ওই ব্যাজের মর্যাদা রাখুন। মমতা ব্যানার্জি আপনাদেরকে চাকরি দেননি। পিতামাতার পয়সায় ও নিজের যোগ্যতায় আপনারা চাকরি পেয়েছেন। তাহলে কেন এই পদলেহন? আপনার কী মনে করেন, সাধারণ মানুষ কি বোঝেন না? আপনারা দুর্নীতিগ্রস্ত, অবৈধ ইনকামের জন্য আপনাদের এই পদলেহন। সাধারণ মানুষ এটাই মনে করে। এটা আপনাদের জন্য সম্মানজনক? তাই বন্ধ করুন এই নোংরামি, এই একপেশে আচরণ।

পশ্চিমবঙ্গের মানুষকে একটা নিরপেক্ষ প্রশাসন দেওয়া আপনাদের কর্তব্য। মমতা ব্যানার্জি অথবা তাঁর পরিবারের পয়সায় বা অনুদানে আপনাদের বেতন হয় না। জনগণের অর্থে আপনারা প্রতিপালিত, একথা ভুলে যাওয়ার অধিকার আপনাদের আছে কি? না, নেই। তাই জনসেবক হোন, মমতাসেবক নয়। নিজেদের দায়িত্ব মনে রাখুন। আর নিজেদের মর্যাদা সম্বন্ধে সচেতন হোন। ভারতী ঘোষ এর মত নোংরা উদাহরণ তৈরী করবেন না।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here