প্যারোলে ছাড়া পেয়ে গায়েব মুম্বই বিস্ফোরণে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামী আনসারি ওরফে ডঃ বম্ব, হামলার আশঙ্কা পুলিশের

আমাদের ভারত, ১৭ জানুয়ারি: প্যারোলে মুক্তি পেয়ে ফেরার হয়ে গেল ১৯৯৩-এর মুম্বই বিস্ফোরণের যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি জালিস আনসারি। স্বভাবতই আনসারির হঠাৎ গায়েব হয়ে যাওয়ায় ঘুম উড়েছে পুলিশের ক্রাইম ব্রাঞ্চ ও রাজস্থান পুলিশ কর্তাদের। আনসারী একজন বোমা বিশেষজ্ঞ। ফলে এই ঘটনায় জঙ্গি হামলার নতুন ছকের আশঙ্কা করছে পুলিশ।

কোন বিস্ফোরক ঠিক কতটা পরিমাণে মেশালে কতটা জোরালো বিস্ফোরণ হতে পারে তা ছিল তার নখদর্পণে। আর সেই জন্যই তার নাম ছিল ডক্টর বোম্ব। ১৯৯৩-র মুম্বই বিস্ফোরণ মামলায় জলিস আনসারি যাবজ্জীবন কারাদণ্ড হয়। জালিস আনসারি রাজস্থানের সেন্ট্রাল জেলে বন্দি ছিলেন।

পুলিশ সূত্রে খবর ২১ দিনের প্যারোলে ছাড়া পেয়েছিল আনসারি। ছাড়া পাওয়ার পর প্রতিদিন মুম্বাইয়ের এগরিপদা পুলিশ স্টেশনে সকাল সাড়ে দশটায় প্রতিদিন হাজিরা দেওয়ার কথা। আনসারি প্রতিদিন নিয়ম করে সেটা করছিল। শুক্রবার জেল কর্তৃপক্ষের কাছে ফের আত্মসমর্পণ করার কথা ছিল আনসারির। কিন্তু আগের দিন অর্থাৎ বৃহস্পতিবার ঘটে যায় বিপত্তি। ওইদিন সকালবেলায় আর হাজিরা দেয়নি জালিস আনসারি। বৃহস্পতিবার বিকেলে তার ছেলে সাইদ আনসারি থানায় গিয়ে জানান তার বাবা নিখোঁজ। সকালে নামাজ পড়তে যাচ্ছেন বলে বাড়ি থেকে বেরিয়ে আর ফেরেননি।

মুম্বাইয়ের এগরিপদা থানায় একটি নিখোঁজ ডায়েরিও করেছে পুলিশ। আনসারির খোঁজে চলছে চিরুনি তল্লাশি। সমস্ত থানায় পাঠানো হয়েছে সতর্কবার্তা।

সিমি ও ইন্ডিয়ান মুজাহিদিনের মত জঙ্গিগোষ্ঠীর সঙ্গে তার যোগ সাজস ছিল বলে জানা গেছে। ২০০৮ এর মুম্বই বিস্ফোরণের তদন্তের সময় তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছিল এন আই এ।

নতুন কোন বড়সড় হামলার পরিকল্পনা করতেই আনসারির আবার জঙ্গিদের সঙ্গে যোগাযোগ করে গা ঢাকা দেওয়ার আশঙ্কা উড়িয়ে দিতে পারছেন না গোয়েন্দারা।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here