কান্দি রনগ্রাম ব্রিজ নিয়ে রাজ্য পূর্ত দফতরকে একহাত নিলেন কান্দি পৌরসভার প্রশাসক অপূর্ব সরকার

আমাদের ভারত, মুর্শিদাবাদ, ২২ সেপ্টেম্বর: মুর্শিদাবাদ জেলার কান্দি বহরমপুর রাজ্যে সড়কের উপরে অবস্থিত রনগ্রাম ব্রিজ বন্ধ করে দিয়েছে পূর্ত দফতর। সেই রনগ্রাম ব্রিজ নিয়ে পূর্ত দফতরের বিরুদ্ধে সোচ্চার হলেন কান্দি পৌরসভার প্রশাসক অপূর্ব সরকার। তৃণমূলের নেতা রাজ্য সরকারের আধিকারিকদের ঘুষ খোর আক্ষা দিলেন। রণগ্রাম ব্রিজ নিয়ে জেলার পূর্ত দফতরের দুই ইঞ্জিনিয়ারকে তোলাবাজ আক্ষা দিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর দ্বারস্থ হলেন কান্দির পৌর প্রশাসক অপূর্ব সরকার।

মঙ্গলবার কান্দি পৌরসভাতে সাংবাদিক বৈঠকে অপূর্ব সরকার জানান, এলাকার জনপ্রতিনিধি, ত্রিস্তরীয় পঞ্চায়েত ব্যাবস্থা ও কান্দি পুরসভাকে অন্ধকারে রেখে হঠাৎ করেই মুর্শিদাবাদ জেলার পূর্ত দপ্তরের আধিকারিক রণগ্রাম ব্রিজের ওপর যান চলাচল বন্ধ করেছে। ফলে সমস্যায় পড়েছে সাধারণ মানুষ। আলোচনার মধ্যে দিয়ে বিকল্প রাস্তা তৈরি করে ব্রিজের সমস্যার সমাধান করা যেত এমনই দাবি তুলে মুখ্যমন্ত্রীর দ্বারস্থ হলেন কান্দি পৌরসভার প্রশাসক অপূর্ব সরকার। পূর্ত দপ্তরের দুই ইঞ্জিনিয়ারের বিরুদ্ধে কন্ট্রাক্টরের সাথে যোগসাজশ করে টাকা তোলা সহ বর্তমান তৃণমূল কংগ্রেসের সরকারকে কালিমালিপ্ত করার উদ্দেশ্যেই এই পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে বলে অভিযোগ তুলেছেন তিনি।

এছাড়াও পূর্ত দপ্তরের ইঞ্জিনিয়ারকে বাম আমলের বামফ্রন্টের ইঞ্জিনিয়ার সংগঠনের নেতা হিসেবেও চিহ্নিত করেন তিনি। অবিলম্বে ওই দুই অফিসারকে সরিয়ে জনগণের কথা ভাবে এমন অফিসারকে পাঠিয়ে সমস্যা সমাধানের আশ্বাস চেয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি লিখলেন কান্দি পৌরসভার প্রশাসক অপূর্ব সরকার। ১৭ নভেম্বর মধ্যরাত থেকেই যান চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে কান্দি বহরমপুর রাজ্য সড়কের ওপর রণগ্রাম ব্রিজের ওপর। ফলে বিপাকে পড়েছে কান্দি মহকুমার মানুষজন। জেলা শহরের সাথে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয় মানুষের। বিকল্প রাস্তা তৈরি করে যান চলাচল স্বাভাবিক রেখেই কাজ করার আবেদন জানিয়েছেন তিনি। শাসকদলের এই নেতা মুখ খুলতেই মুর্শিদাবাদ জেলার রাজনৈতিক মহলে জোর বিতর্ক তৈরি হয়েছে।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here