লাভ জিহাদ! পরিচয় গোপন করে নাবালিকাকে প্রেমের জালে ফাঁসিয়ে ধর্ম পরিবর্তনে চাপ দেওয়ার অভিযোগ

আমাদের ভারত,১৬ অক্টোবর: কানপুরের সপ্তম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে পরিচয় গোপন করে প্রেমের জালে ফাঁসানোর অভিযোগ উঠেছে এক যুবকের বিরুদ্ধে। ওই নাবালিকার মা অভিযোগ করেছেন যুবক নিজের পরিচয় গোপন করে তার মেয়ের সঙ্গে ফোনে কথা বলত। এমনকি সেই যুবক ও তার বোন মিলে ওই নাবালিকাকে ধর্ম পরিবর্তনের জন্যেও চাপ দিতে শুরু করেছিল বলে অভিযোগ। ঘটনায় লাভ জিহাদের অভিযোগ করেছেন ওই নাবালিকার মা।

ওই নাবালিকার মা জানান, সপ্তম শ্রেণীর মেয়েটিকে ভুলিয়ে প্রথমে নিজের বাড়ি নিয়ে যায় ওই যুবক, তারপর তাকে নামাজ আদায় করার নিয়ম কানুন শেখানো হয়। এমনকি কিভাবে আয়াত করতে হয় সেটাও শেখানো হচ্ছিল। ওই মহিলার অভিযোগ তার মেয়ের ধর্মান্তকরণের সব রকম প্রস্তুতি সেরে ফেলেছেন ওই যুবক ও তার বোন।

এই যুবকের সঙ্গে সপ্তম শ্রেণীর ঐ মেয়েটি একদিন ঘুরতে বেরোয়। কিন্তু অনেক রাত পর্যন্ত বাড়ি না ফেরায় মেয়েটির মা পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করে। তারপর ওই যুবককে খুঁজে বের করে পুলিশ আটক করে। পুলিশের জেরার মুখে যুবক জানায় তার নাম মোহাম্মদ ওবেস। সে ঠিকা শ্রমিকের কাজ করে। এলাকায় তাকে বাবু বলে সবাই তাকে চেনে। নাবালিকার মা মহম্মদ ওবেসের বিরুদ্ধে লাভ জিহাদের অভিযোগ করেছেন।

নাবালিকার মা জানিয়েছেন তাদের বাড়ির সামনে একটি খালি পড়ে থাকা জমিতে কয়েক মাস ধরে বাড়ি তৈরীর কাজ চলছে। সেখানেই ঠিক শ্রমিকের কাজ করে ওই যুবক। কাজের মাঝে বারবার ঠান্ডা জল চাইতে তাদের বাড়িতে আসতো সে। কোনদিনই সে নিজের ধর্মীয় পরিচয় জানায়নি। এরপরই সপ্তম শ্রেণীর মেয়েটির সঙ্গে যুবকের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। কিন্তু প্রথম থেকেই এই সম্পর্ক নিয়ে আপত্তি জানিয়েছিলেন তিনি।কয়েক বছর আগে মেয়েটির বাবা মারা গেছেন । ফলে মেয়েটিকে নিয়ে একাই থাকেন ওই মহিলা। তার অভিযোগ গত কয়েকদিন ধরে ওই যুবক ও তার বোন মিলে তার মেয়েকে ধর্ম পরিবর্তনের জন্য চাপ দিচ্ছিল।

পুলিশি জেরায় ওই যুবক সব কথা স্বীকার করেছে। সে জানিয়েছে সে ও তার বোন মিলে ওই মেয়েটির ধর্ম পরিবর্তনের জন্য চাপ দিচ্ছিল কিছুদিন ধরে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here