স্কুল ছুটি দিয়ে চলছে বিয়ের অনুষ্ঠান, ক্ষুব্ধ অভিভাবকরা

আমাদের ভারত, উত্তর ২৪ পরগনা, ২২ জানুয়ারি:
গাইঘাটায় প্রাথমিক স্কুল ছুটি দিয়ে হচ্ছে বিয়ের ভোজের অনুষ্ঠান। এমনই অভিযোগ গ্রামবাসীদের একংশের। বুধবার ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগণার গাইঘাটার ঠাকুরনগর বড়া কৃষ্ণনগর সহদের শিশুশিক্ষা নিকেতন প্রাথমিক বিদ্যালয়ে। অভিযোগ, স্কুলের মাঠ জুড়ে প্যান্ডেল করে চলছে রান্নার কাজ। সেই কারণে শুধু ডিম খাইয়ে পড়ুয়াদের বাড়ি পাঠিয়ে দেয় স্কুলের শিক্ষিকারা।   

স্থানীয় সূত্রের খবর,  এলাকার বাসিন্দা পীযূষ কান্তি মন্ডল নামে এক ব্যক্তির মেয়ের বিয়ের অনুষ্ঠানের 
প্যান্ডেল করা হয়েছে স্কুলে মাঠে।আর সেই কারণেই পড়ুয়াদের মিডডে মিলের ডিম খাইয়ে বাড়ি পাঠিয়ে,  ছুটি দিয়ে দেওয়া 
হয়েছে স্কুল।অনুষ্ঠানের জন্য স্কুলের কোনও অনুমতি সেই ভাবে কারও কাছ থেকে নেওয়া হয়নি।এব্যপারে  জানতে স্কুলের শিক্ষক শিক্ষিকা কোনও সদুত্তর দিতে 
পারেননি। যদিও এই বিষয় 
মেম্বার এবং স্কুল কর্তৃপক্ষ
একে অপরের উপর দোষ চাপাচ্ছেন।
ওই গ্রামের বাসিন্দাদের 
একাংশও এই অভিযোগ করেন আমরা 
ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখি স্কুল বন্ধ। বৌভাতের আয়োজন চলছে। অভিভাবকদের অভিযোগ, স্কুলের শিক্ষক শিক্ষিকারা জানতেন স্কুল বন্ধ রাখতে হবে তাহলে আগের দিন নোটিশ দেয়নি কেন।

অনুষ্ঠানের উদ্যোক্তা স্থানীয়পীযূষবাবু বলেন, “আমার বাড়িতে অনুষ্ঠান করার মতো জায়গা নেই। তাই স্কুল শিক্ষিকা ও মেম্বরের কাছে স্কুলের বারান্দা ব্যবহার করার 
অনুমতি নিয়েছিলাম। 

গাইঘাটার পঞ্চায়েত সমিতিরসহ সভাপতি ইলা বাকচি 
বলেন, অভিযোগটা আমি আগেই পেয়েছি। পঞ্চায়েত সমিতি থেকে আধিকারিকরা গিয়ে দেখে এসেছে। এটা একটা অনৈতিক কাজ। উচিৎ হয়নি স্কুল বন্ধ করে বিয়ে বাড়ির অনুষ্ঠান করা। ইতি মধ্যে বিডিও সাহেবকে জানানো হয়েছে। তিনি যা ব্যবস্থা নেওয়ায় নেবেন।    

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here