ভোররাতে সদ্যোজাত শিশুসহ প্রসূতির মৃত্যু, ভাঙ্গচুর ইসলামপুর মহকুমা হাসপাতালে

স্বরূপ দত্ত, আমাদের ভারত, উত্তর দিনাজপুর, ১১ মে: সদ্যোজাত শিশুসহ এক প্রসূতির মৃত্যুকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা ছড়াল। ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার ভোররাতে উত্তর দিনাজপুর জেলার ইসলামপুর মহকুমা হাসপাতালে। কর্তব্যরত চিকিৎসকের বিরুদ্ধে চিকিৎসায় গাফিলতির অভিযোগ তুলে উত্তেজিত স্থানীয় বাসিন্দারা হাসপাতালে ভাঙ্গচুর চালায়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে আসে ইসলামপুর থানার পুলিশ।ইঙ্গ পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। মৃতা প্রসূতির নাম রঙ্গিলা। পুলিশ মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ইসলামপুর পুলিশ মর্গে পাঠানোর পাশাপাশি ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, ইসলামপুর থানার মহব্বতপুরের বাসিন্দা রঙ্গিলা নামে এক প্রসূতিকে রবিবার রাতে ইসলামপুর মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অভিযোগ, ওই প্রসূতিকে হাসপাতালে ভর্তি করার পরেও কর্তব্যরত চিকিৎকেরা তাঁকে দেখেননি বলে অভিযোগ। গভীর রাতে ওই প্রসূতি একটি শিশুর জন্ম দিলেও তা মৃত অবস্থায় প্রসব হয়। মৃত সদ্যোজাত শিশুটিকে নিয়ে এসে তার অন্তোষ্টিক্রিয়ার জন্য প্রস্তুতি নিতে থাকেন পরিবারের লোকজনরা। এরইমধ্যে তারা খবর পান চিকিৎসাধীন প্রসুতি রঙ্গিলার অবস্থা আশঙ্কাজনক। পরিবারের লোকজন হাসপাতালে এসে ওই প্রসূতিকে মৃত অবস্থায় দেখতে পান।

এই ঘটনায় চিকিৎসকদের গাফিলতির অভিযোগ তোলেন পরিবারের লোকজন। অতিরিক্ত রক্তক্ষরনের জন্যই মৃত্যু হয়েছে ওই প্রসূতির। এরপরই উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে ইসলামপুর মহকুমা হাসপাতাল চত্বরে। উত্তেজিত স্থানীয় বাসিন্দারা হাসপাতালে ভাঙ্গচুর চালায় বলে অভিযোগ। হাসপাতালের নিরাপত্তারক্ষীরা এসে পরিস্থিতি সামাল দেয়। ঘটনার খবর পেয়ে ছুটে আসে ইসলামপুর থানার পুলিশ।

ভোররাতে এই ঘটনায় চিকিৎসাধীন অন্যান্য রোগীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। মৃতা প্রসূতির শ্বশুর এক্রামুদ্দিনের অভিযোগ, ওই প্রসূতিকে হাসপাতালে ভর্তি করার পর চিকিৎসকরা তাঁর দেখভাল করেননি। চিকিৎসার গাফিলতির কারনেই মৃত্যু হয়েছে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here