কালই নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলে অনুমোদন দিতে পারে মোদি সরকার

তারক ভট্টাচার্য

আমাদের ভারত, ৩ ডিসেম্বর: কাল সংসদের অধিবেশন বসার আগে বৈঠক করবে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা। বৈঠকে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল অনুমোদনের জন্য পেশ করতে পারেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। বিভিন্ন সূত্রে একথা জানা গিয়েছে। নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলকে আইনে পরিণত করে, এদেশে হিন্দু-সহ অমুসলিম সম্প্রদায়ের নাগরিকদের বসবাসের অধিকার নিশ্চিত করতে বদ্ধপরিকর নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বাধীন কেন্দ্রীয় সরকার। সোমবারই সংসদে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন যে ভারতে কোনও অনুপ্রবেশকারীকে থাকতে দেওয়া হবে না। একইসঙ্গে তিনি জানিয়েছেন, ২০২৪ সালের মধ্যে দেশে জাতীয় পঞ্জিকরণ তথা ‘ন্যাশনাল রেজিস্টার অফ সিটিজেনস’ বা এনআরসি চালু করা হবে।

তবে এনআরসি চালুর আগে কেন্দ্র নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন আনতে চায়। কারণ, অসমে এনআরসি চালুর জেরে তালিকা থেকে বহু হিন্দুর নাম বাদ পড়েছে। তার ফলে এনআরসি নিয়ে হিন্দুদের মনে সংশয় তৈরি হয়েছে। এই রাজ্যে, তিনটি বিধানসভা উপনির্বাচনে বিজেপি পরাজিতও হয়েছে। এই পরিস্থিতিতে হিন্দু ভোটব্যাংক টিকিয়ে রাখতে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল আনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। কারণ, এই বিল আইন হলেই অসম থেকে বাংলা, সংখ্যাগরিষ্ঠ হিন্দু নাগরিকদের সমস্যা অনেকটাই মিটে যাবে। দেশের অন্যান্য নাগরিকদের সঙ্গে হিন্দু বাঙালি নাগরিকদের কোনও পার্থক্যও থাকবে না।

এই পরিস্থিতিতে নাগরিকত্ব বিলের বিরোধিতার জন্য তৈরি হচ্ছে তৃণমূল-সহ বিরোধীরা। তবে, সূত্রের খবর- সেকথা মাথায় রেখেই অমিত শাহরা এগোচ্ছেন। শুধু তাই নয়, বিজেপি আশাবাদী, সংসদের উভয় সভায় নাগরিকত্ব বিল পাশ করাতে তাদের কোনও অসুবিধা হবে না।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here