“২০১৪-র চেয়েও বড় ঝড় আসছে, কংগ্রেসের চেয়ে তিন গুণ বেশি আসন পাবে বিজেপি”

“২০১৪-র চেয়েও বড় ঝড় আসছে, কংগ্রেসের চেয়ে তিন গুণ বেশি আসন পাবে বিজেপি”

আমাদের ভারত ডেস্ক,১৪ এপ্রিল: ২০১৪-র থেকেও ২০১৯ এ বেশি আসন পাবে বিজেপি। জম্মুতে নির্বাচনী প্রচারে গিয়ে এমনটাই দাবি করেছেন নরেন্দ্র মোদী। প্রধানমন্ত্রীর দাবি ২০১৪ থেকেও বিজেপির তরফ আর বেশি জোরদার হাওয়া বইছে। মোদী বলেন, প্রথম দফার ভোটে ভারতের মানুষ প্রমাণ করে দিয়েছে গণতন্ত্র কতটা শক্তিশালী। তারা আরও দাবি বিজেপি কংগ্রেসের থেকে তিনগুণ আসন বেশি পাবে।

মোদী বলেন জম্মু-কাশ্মীরের জন্য পৃথক প্রধানমন্ত্রী কথা বলে বিরোধীরা ভয় দেখাচ্ছে জনগণকে। উল্লেখ্য ন্যাশনাল কনফারেন্সের নেতা কয়েকদিন আগে পৃথক কাশ্মীরে পৃথক প্রধানমন্ত্রী ও রাষ্ট্রপতির কথা বলেছিলেন। থএক্ষেত্রে কংগ্রেসের অবস্থান স্পষ্ট করতে বলেন মোদী।

প্রধানমন্ত্রী বলেন কাশ্মীরের পণ্ডিতরা কংগ্রেসের নীতির জন্যই কাশ্মীর ছেড়ে চলে গেছেন। নিজেদের ভিটেমাটি সমস্ত ছেড়ে বাধ্য হয়েছেন কাশ্মীরের পণ্ডিতরা চলে যেতে কংগ্রেসের দুর্বল দুর্নীতির কারণে। তার আরও অভিযোগ ভোট ব্যাংকের রাজনীতি করতে গিয়েই কাশ্মীরি পণ্ডিতদের ইস্যুতে নজর দেয়নি কংগ্রেস ও তার সহযোগী দলগুলি।

তার এদিনের বক্তৃতায় ৮০ শতাংশই ছিল দেশের নিরাপত্তা, সেনার বীরত্ব ও জাতীয়তাবাদ কেন্দ্র করে। তিনি প্রশ্ন তোলেন সার্জিক্যাল স্ট্রাইক বা এয়ার স্ট্রাইকের কথা শুনে কেন ভয় পায় কংগ্রেস? কেন দেশের সেনার উপর ভরসা রাখেনি কংগ্রেস? ১৯৬২ সালের পুনরাবৃত্তির ভয়ে কংগ্রেস সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে কোনদিন বড় পদক্ষেপ নেয়নি।

এদিন তিনি ন্যাশনাল কংগ্রেস কনফারেন্স ও পিডিপিকে হুঁশিয়ার করে বলেন, তাদের জানা উচিত জম্মু কাশ্মীর ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ। মোদী বলেন ৩৭০ এবং ৩৫-এ অনুচ্ছেদ নিয়ে কার্যত হুঁশিয়ারি দিয়ে মোদী বলেন দেশের এই দুই বিধানের বিরোধিতা করেছিলেন। শ্যামাপ্রসাদ মুখার্জী। আর এই চৌকিদার দেশের অখন্ডতা বজায় রাখবেই যেকোনো মূল্যে।তিনি মুফতি ও আব্দুল্লাহ পরিবারকে আক্রমন করে বলেন এদের জন্য কাশ্মীরের তিনটি জেনারেশন নষ্ট হয়েছে। তার দাবি এই পরিবারগুলি ভূস্বর্গ থেকে সড়লে তবেই কাশ্মীরের ভবিষ্যৎ উজ্জ্বল হবে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

18 − two =