তৃণমূল চলে যাওয়ার পর মাটি খুঁড়লে টাকা পাওয়া যাবে: জয়

আমাদের ভারত, হাওড়া, ১৪ জুলাই: সিপিএম ক্ষমতা থেকে চলে যাওয়ার পর মাটি খুঁড়লে যেমন মানুষের হাড়গোড় পাওয়া গিয়েছিল সেইরকম তৃণমূল চলে যাওয়ার পর মাটি খুঁড়লে টাকা পাওয়া যাবে বলে অভিযোগ করলেন বিজেপি নেতা জয় বন্দ্যোপাধ্যায়। মঙ্গলবার বিকেলে পাঁচলার বিকি হাকোলায় বিজেপির ডাকা একটি ডেপুটেশনে অংশ নিতে এসে এই চাঞ্চল্যকর অভিযোগ করেন জয় বন্দ্যোপাধ্যায়।

এদিন জয় বলেন, তৃণমূল নেতাদের মজ্জায় মজ্জায় লোভ ঢুকে গেছে আর সেই কারণেই এই দলটায় এত দুর্নীতি। টাকা নিয়ে নিয়ে তৃণমূল নেতাদের লোভ এতটাই বেড়ে গেছে যে এরা টাকা ছাড়া কিছু বোঝে না। এমনকি টাকার গন্ধ ছাড়াও এদের রাতে ঘুম হয় না বলে অভিযোগ করেন জয় বন্দ্যোপাধ্যায়। দুর্নীতি নিয়ে জেলার দুই মন্ত্রীর বাকযুদ্ধ সম্পর্কে জয় বলেন, এটা তো সবে শুরু, এরপরে তৃণমূল দলের মধ্যে গৃহযুদ্ধ শুরু হবে’। তিনি বলেন, তৃণমূল নেতাদের এই লোভ বন্ধ করতে হলে রাজ্যে বিজেপিকে ক্ষমতায় আনতে হবে। এদিন জয় মুখ্যমন্ত্রীর ছবির নীচে সততার প্রতীক লেখা নিয়ে কটাক্ষ করে বলেন, দলের নেতাদের দুর্নীতির কারণে কর্মীরা এখন এই লেখাটা লিখতে ভয় পায়।

করোনা আক্রান্ত হয়ে এক ডেপুটি ম্যাজিস্ট্রেটের মৃত্যু সম্পর্কে জয় বলেন, এটা খুব দুঃখজনক ঘটনা পাশাপাশি এটা আমাদের চোখে আঙ্গুল দিয়ে দেখিয়ে গেল রাজ্যের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা কতটা বেআব্রু। এদিন জয় অভিযোগ করেন, রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে হাসপাতালে শয্যা সংখ্যা নিয়ে যে তথ্য দেওয়া হচ্ছে বাস্তবে তার সঙ্গে কোনো মিল নেই। আর যার কারণে প্রতিদিন বিভিন্ন হাসপাতালে রোগী রেফার করার ঘটনা ঘটছে এবং বিনা চিকিৎসায় তাদের মৃত্যু হচ্ছে। যে রাজ্যে একজন মহিলা ম্যাজিস্ট্রেটের চিকিৎসার কোনো ব্যবস্থা নেই সেখানে সাধারণ মানুষ কিভাবে চিকিৎসা পাবে সেই নিয়েও জয় এদিন প্রশ্ন তোলেন। জয়ের অভিযোগ, আসলে এই রাজ্যে স্বাস্থ্য ব্যবস্থার কোনো পরিকাঠামো নেই আর তার অন্যতম কারণ এই রাজ্যে মেধাবী পড়ুয়ারা ডাক্তারি পড়ার সুযোগ পায় না টাকা দিয়ে বড় লোকের ছেলেরা সুযোগ পায়।

এদিনের এই ডেপুটেশনে জয় বলেন, বাংলায় সিপিএম-তৃণমূল সবাই রাজত্ব করেছে কিন্তু মানুষ শান্তিতে থাকতে পারেনি একমাত্র বিজেপিই পারবে সেই শান্তি দিতে। রাজ্যের মানুষ সকলকে সুযোগ দিয়ে দেখেছে কিন্তু বিজেপিকে সুযোগ না দিলে বুঝতে পারবে না কোনটা ভালো কোনটা খারাপ সুতরাং বিজেপিকে বাংলায় ক্ষমতায় আনার আহ্বান জানান বিজেপির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য জয় বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিনের এই সভায় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বিজেপির হাওড়া গ্রামীণ জেলার সহ-সভাপতি ভবানী প্রসাদ রায়, প্রাক্তন সভাপতি অনুপম মল্লিক সহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।এদিনের এই ডেপুটেশনের কয়েক হাজার বিজেপি কর্মী সমর্থক উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত করোনা সংক্রমণের মাঝেই গত কয়েক মাস জয় উলুবেড়িয়ার বিভিন্ন প্রান্তে ছুটে বেড়িয়েছেন। গত ৩ জুলাই তিনি দিল্লিতে যাওয়ার পর সোমবার ফিরেছেন আর রাজ্যে ফিরেই তিনি কোমর বেঁধে মাঠে নেমে পড়েছেন।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here