গলার নলি কাটা অবস্থায় উদ্ধার ব্যক্তির মৃত্যু হাসপাতালে, চাঞ্চল্য চাকদহে

স্নেহাশিস মুখার্জি, আমাদের ভারত, নদিয়া, ৯ ডিসেম্বর:
গলার নলি কাটা অবস্থায় এক ব্যক্তিকে তার বাড়ির কাছ থেকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাবার পর মৃত্যু হল ওই ব্যক্তির। ঘটনাটি ঘটেছে নদিয়ার চাকদহ থানার রাজবাগান পাড়া এলাকায়।

জানাযায়, মৃত ব্যক্তির নাম গৌতম দাস। বয়স একান্ন বছর। অভিযোগ পেশায় রং মিস্ত্রী গৌতম দাস চোলাই মদের ব্যাবসাও করতেন। প্রাথমিকভাবে পুলিশ ও এলাকার মানুষের অনুমান পুরনো কোন শত্রুতার জেরেই খুন হতে হয়েছে এই রং মিস্ত্রীকে।

রাজবাগানপাড়া এলাকাতেই তার বাড়ি। শনিবার সন্ধ্যায় তিনি বাড়ি থেকে বেরিয়েছিলেন। কিন্তু রাত বেশি হয়ে যাওয়া সত্ত্বেও বাড়ি ফিরতে না দেখে বাবাকে খুঁজতে বেরিয়েছিলেন ওই ব্যক্তির ছেলে। বাড়ির কিছুটা দূরে পুকুর পাড়ে অচৈতন্য অবস্থায় বাবাকে গলার নলি কাটা অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখতে পান ছেলে।

গৌতম দাসকে প্রথমে চাকদহ স্টেট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যান তার বাড়ির লোকজন। এরপর আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে স্থানান্তরিত করা হয় কল্যাণীর জহরলাল নেহরু মেমোরিয়াল হাসপাতালে। সেখান থেকে তাকে স্থানান্তর করা হয় কলকাতার নীলরতন সরকার হাসপাতালে। সোমবার সকাল সাড়ে নটা নাগাদ ওই হাসপাতালে মৃত্যু হয় গৌতম দাসের। যদিও কি কারণে এই খুনের ঘটনা ঘটল, তা বুঝতে পারছেন না গৌতম দাসের প্রতিবেশীরা।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here