সংসারের অভাব ঘোচাতে পূর্ব মেদিনীপুরে এক গৃহকর্ত্রীই এখন টোটোচালক

জে মাহাতো, আমাদের ভারত, পূর্ব মেদিনীপুর, ২৭ জুলাই: লকডাউনে কর্মহীন হয়েছেন স্বামী। থেমেছে রোজগারের মাধ্যম। সংসারের অভাব অনটন আর ব্যাঙ্কের ঋণ মেটাতে পথে নেমে টোটো চালাচ্ছেন গৃহবধূ। পূর্ব মেদিনীপুরের নন্দকুমারের বর্গদা গ্রামের নিয়তি বর্মন টোটো চালিয়েই সংসারের অভাব দূর করছেন।

পরিবারে রয়েছেন স্বামী, তিন সন্তান এবং বৃদ্ধা শাশুড়ি। স্বামী ভিন রাজ্যে কাজ করতেন। লকডাউনে বাড়িতে এসে পরিবার এখন অভাব অনটনের মধ্যে রয়েছে দেখে বাধ্য হয়েই টোটো চালান তিনি। কিন্তু একার রোজগারে এতগুলো মানুষের অভাব দূর করাটা খুব একটা সহজ নয়। তাই স্বামীর সাথে টোটো চালান নিয়তিও। তিনি জানান, অনেকেই নানা কথা বলে। মেয়ে টোটো চালাচ্ছে বলে অনেক কথাও শুনতে হয়। কিন্তু পরিবারের কথা ভেবে এই কাজ করতে হচ্ছে। আমি তো কোনো ভুল কাজ করছি না। আর কেন করছি সেটা আমি জানি।
সারাদিন টোটো চালিয়ে পরিবারের মোট আয়ের কিছুটা রেখে ব্যাঙ্কের ঋণ মেটাচ্ছেন নিয়তি। নিয়তির এই কাজকে কুর্নিশ জানিয়েছেন পরিবারের মানুষজন এবং এলাকার কিছু মানুষ।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here