১৬ এবং ১৭ আগষ্ট লকডাউন ঘোষণা হওয়ায় বিপত্তিতে মনসা পূজোর আয়োজকরা, দিন পরিবর্তনের আর্জি

সাথী দাস, আমাদের ভারত, পুরুলিয়া, ২৯ জুলাই: পুরুলিয়া জেলার অন্যতম লোক উৎসবের হল মনসা পুজো। হাজার হাজার মানুষের আন্তরিক আয়োজনে এই পুজো উৎসবের চেহারা নেয়। এবার করোনা আবহ বাদ সাধছে। তবুও, সরকারি নির্দেশ মেনে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে পুজো সারতে চান আয়োজকরা। ১৬ এবং ১৭ আগষ্ট রাজ্য সরকারের লকডাউন ঘোষণা হওয়ায় বিপত্তিতে পড়েছেন তাঁরা। পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে লকডাউনকে পূর্ণ সমর্থন জানালেও মুখ্যমন্ত্রীর উদ্দেশ্যে ওই দু’টি দিন পরিবর্তন করার জন্য আর্জি জানিয়েছেন তাঁরা।

পরম্পরা ও রীতি মেনে উৎসাহের সঙ্গে নাগ দেবীর আরাধানায় মাতেন রাজ্যের প্রান্তিক জেলা পুরুলিয়া। কয়েক দিন ধরেই পুজোর প্রস্তুতি নেন পুজোর আয়োজকরা। শ্রাবণ মাসের সংক্রান্তির দিন মূলত এই পুজো হয়ে থাকে। পরম্পরা মেনে প্রাচীন এই পুজো
উৎসবের আকার নেয়। তারই প্রস্তুতি চলছে এখন। পুজো ছাড়াও ক্লাব এবং সর্বজনীন মনসা পুজো দেখতে পাওয়া যায় পুরুলিয়া শহর সহ জেলার সর্বত্র। পুরুলিয়া শহরের অদূরে লোহারশোল ও আমজোড়া গ্রামের বেদে পাড়া, ধীবর পাড়াতেও পুজোর ধুম দেখা যায়। পুজোর আগের দিন থেকেই জেলায় একটা উৎসবের আমেজ দেখা দেয়। দোকান-পাট, হাট-বাজার পুজোর দিন ও পরের দিন কার্যত বন্ধ থাকে। এবার সবকিছু অনিশ্চয়তার মধ্যে চলে গিয়েছে। সাম্প্রতিক পরিস্থিতি এর কারণ। পরম্পরা রীতি আর আবেগ চাপা রাখা কি যাবে জেলা পুরুলিয়ায়? এই প্রশ্নের এখন উত্তর নেই।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here