পঞ্চায়েত ভোটের দাওয়াই পুরভোটে প্রয়োগ করা যাবে না, তৃণমূল কাউন্সিলারদের নির্দেশ দিলেন পিকে

নীল বনিক, আমাদের ভারত, কলকাতা, ৩ জানুয়ারি:
আগামী পুরনির্বাচন যে কঠিন তা বিলক্ষণ বুঝতে পারছেন তৃণমূল নেতৃত্ব। আর কঠিন লড়াই পার করতে হলে এখনই নির্বাচন মনে করে ঝাঁপিয়ে পড়ুন। তবে গায়ের জোরে ভোট করা যাবে না। কারোর জন্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ভাবমূর্তি নষ্ট হলে মেনে নেওয়া যাবে না। ভোটের দিন লোকাল ক্ষমতাবলে ভোট করা যাবে না। কলকাতা পুরসভার তৃণমূল কাউন্সিলর ও বিধায়কদের নিয়ে বৈঠকে এমন নির্দেশ দিলেন রাজ্যের শাসক দলের ভোটগুরু প্রশান্ত কিশোর। দলের কাউন্সিলাদের প্রশান্ত কিশোরের নির্দেশের সময় অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়, ববি হাকিম, পার্থ চট্টোপাধ্যায়রা উপস্থিত ছিলেন। শুক্রবার পুরভোটের প্রস্তুতি নিয়ে শাসক দলের কাউন্সিলারদের ও দক্ষিণ ২৪ পরগনার বিধায়কদের নিয়ে বৈঠকে বসেন পিকে। বেঠকে ছিলেন দক্ষিণ ২৪ পরগনার জেলা সভাপতি শুভাশিস চক্রবর্তীও।

বৈঠকে সূত্র থেকে জানা গেছে, কাউন্সিলরদের দুটি করে দিদিকে বলো কর্মসূচি দেওয়াছিল তাদের আরও দুটি করে দিদিকে বলো কর্মসূচি করার নির্দেশ দিয়েছেন প্রশান্ত কিশোর। তার সঙ্গে তৃণমূলের ভোট ম্যানেজার পিকে বিধায়কদের চলতি মাসের মধ্যেই দশটি করে নিজের এলাকায় কর্মসূচি শেষ করার নির্দেশ দিলেন। বৈঠকে দিদিকে বলো কর্মসূচির পাশাপাশি দলীয় সংগঠনকে চাঙ্গা করতে এবং এলাকার সংশ্লিষ্ট মানুষ ও বিশিষ্টজনদের কাছে বারে বারে যাবার নির্দেশ দিয়েছেন প্রশান্ত কিশোর। তাদের কি কি সমস্যা আছে এবং তার সমাধান যত দ্রুত করা যায় তারও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বৈঠকে। এলাকার যে দলীয় পার্টি অফিস দৈনন্দিন মিটিং এবং ভোটার লিস্টের যা কাজকর্ম রয়েছে সেগুলো সংশ্লিষ্ট এলাকার দায়িত্বপ্রাপ্ত কাউন্সিলর, বিধায়কদের নির্দিষ্ট ভাবে ভাগ করে দিতে বলা হয়েছে। যাতে ভোটার লিস্টে নাম তোলার কাজে নতুন ভোটারদের নাম যাতে বাদ না যায় এবং সংশোধনের কাজ দ্রুত করতে দলীয় দায়িত্বপ্রাপ্তদের এলাকার বিএলআরও’র সঙ্গে যোগাযোগ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এনআরসি এবং সিএএ রাজ্যে করতে দেবেন না তৃণমূল নেত্রী ঘোষণা করেছেন। সেইমতো বাড়িতে বাড়িতে এই নিয়ে জনসংযোগের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি সরকার এবং তৃণমূল কংগ্রেস যে রাজ্যের মানুষের পাশে আছে সেটা বোঝানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। লবি করে টিকিট পাওয়া যাবে না। যতটা সম্ভব দামি পোশাক গয়না এড়িয়ে চলার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। নিজের ও দলের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করুন, দল সকলের দিকে নজর রাখছে। মানুষের পাশে থাকলে জনসংযোগ ঠিক থাকলে যোগ্য ব্যক্তি সবাই টিকিট পাবেন। উন্নয়নের ব্যাপারে এবং জনসংযোগের ব্যাপারে কোনও রং দেখবেন না বলেও বৈঠকে কাউন্সিলারদের জানিয়েছেন প্রশান্ত কিশোর।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here