খড়্গপুরের বড়কোলা গ্রামের ১২০টি পরিবারের পাশে “পান্থপাদপ “সোসাইটি

আমাদের ভারত, মেদিনীপুর, ২৬ এপ্রিল: করোনা পরিস্থিতিতে সংকটকালে আর্থিক দিক থেকে পিছিয়ে পড়া মানুষদের পাশে দাঁড়াতে আবারও এগিয়ে এল মেদিনীপুর শহরের স্বেচ্ছাসেবী প্রতিষ্ঠান পশ্চিম মেদিনীপুর ধর্মা পান্থপাদপ সোসাইটি। রবিবার সকালে সোসাইটির পক্ষ থেকে খড়্গপুর লোকাল থানার অন্তর্গত বড়কোলা গ্রামের বৈতাবালী, ডি পাড়া, ডোঙ্গাপাড়া এই তিনটি আদিবাসী পাড়ার ১২০টি পরিবারের হাতে ত্রাণ তুলে দেওয়া হয়।

ত্রাণ সামগ্রী হিসেবে প্রতিটি পরিবারের হাতে চাল, তেল, আলু, পেঁয়াজ, মসুর ডাল, হলুদ গুড়ো, লঙ্কাগুঁড়ো, সোয়াবিন, চানাচুর, বিস্কুট, সাবান, লবণ, মুড়ি তুলে দেওয়া হয়। বড়কোলা গ্রামে আয়োজিত এই ত্রাণ বিতরণ কর্মসূচিতে পান্থপাদপ সোসাইটির পক্ষে উপস্থিত ছিলেন সম্পাদক সুব্রত দত্ত, হীরুলাল পাখিরা, কাঞ্চনজ্যোতি দোলই, সুজয় ঘোড়াই দেবব্রত দত্ত প্রমুখ। সাদাতপুর ফাঁড়ির আইসি মিঃ সিং’য়ের তত্বাবধানে এবং অন্যান্য পুলিশ কর্মীদের উপস্থিতিতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে কর্মসূচি সম্পন্ন হয়।

সোসাইটি পক্ষে সভাপতি সুশান্ত কুমার ঘোষ জানান, এই সংকটময় পরিস্থিতিতে তাঁদের এই ক্ষুদ্র প্রয়াস মানুষের কিছুটা হলেও কাজে এলে তাঁরা খুশি হবেন এবং আগামী দিনে তাঁরা আরও কিছু মানুষের পাশে দাঁড়ানোর চেষ্টা করবেন। উল্লেখ্য, এর আগে শুক্রবার সোসাইটির পক্ষ থেকে গোয়ালতোড় থানার নলবনা পঞ্চায়েতের ৬০টি আদিবাসী পরিবারকে ত্রাণ সামগ্রী প্রদান করা হয়েছিল।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here